কিশোরগঞ্জে করোনায় ২ জনের মৃত্যু,শনাক্ত ১২০

কিশোরগঞ্জে করোনায় ২ জনের মৃত্যু,শনাক্ত ১২০

করোনাভাইরাস কোভিড-১৯ সংক্রমণ পরিস্থিতি এখন দিন দিন বেশ উন্নতির দিকে যাচ্ছে। জেলায় শনাক্ত বিবেচনায় করোনাভাইরাস মুক্ত হয়ে সুস্থ হওয়ার সংখ্যা প্রতিনিয়ত বাড়ছে। এছাড়া মৃত্যুর হারও কমেছে। ফলে করোনা সংক্রমণ নিয়ে জেলায় কিছুটা স্বস্তির পরিবেশ বিরাজ করছে।

কিশোরগঞ্জের সিভিল সার্জন ডা. মো. মুজিবুর রহমান কর্তৃক সর্বশেষ রোববার (২৯ আগস্ট) রাতে প্রকাশিত রিপোর্টে জেলায় নতুন করে ১২০ জন সুস্থ হয়েছেন। এছাড়া এদিন জেলায় নতুন করে মোট ২২ জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে। অন্যদিকে টানা তিনদিন জেলায় করোনায় মৃত্যুশূন্য থাকার পর নতুন করে দুইজনের মৃত্যু হয়েছে। তাদের মধ্যে ভৈরব উপজেলার একজন পুরুষ (৫৮) ও করিমগঞ্জ উপজেলার একজন মহিলা (৫০)।

ভৈরব উপজেলার মারা যাওয়া ব্যক্তি শহীদ সৈয়দ নজরুল ইসলাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় এবং করিমগঞ্জ উপজেলার মারা যাওয়া নারী নিজ বাড়িতে মৃত্যুবরণ করেছেন। মোট ৩৭৬ জনের নমুনা পরীক্ষা করে জেলায় নতুন করে মোট ২২ জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে। নতুন করোনা শনাক্ত হওয়া ২২ জনের মধ্যে কিশোরগঞ্জ সদর উপজেলায় ১০ জন, তাড়াইল উপজেলায় ১ জন, পাকুন্দিয়া উপজেলায় ১ জন, কটিয়াদী উপজেলায় ১ জন, কুলিয়ারচর উপজেলায় ২ জন, ভৈরব উপজেলায় ৫ জন এবং বাজিতপুর উপজেলায় ২ জন শনাক্ত হয়েছেন। হাসপাতালটিতে বর্তমানে কোভিড-১৯ আক্রান্ত ও সন্দেহজনক কোভিড-১৯ রোগীর সংখ্যা ৮৭ জন।

তাদের মধ্যে ৩ জন আইসিইউতে এবং ৬ জন এইচডিইউতে রয়েছেন। গত ২৪ ঘন্টায় হাসপাতালটিতে নতুন ৮ জন রোগী ভর্তি হয়েছেন এবং ১৩ জন ছাড়পত্র পেয়েছেন। নতুন সুস্থ হওয়া ১২০ জনের মধ্যে কিশোরগঞ্জ সদর উপজেলার সর্বোচ্চ ৭০ জন সুস্থ হয়েছেন। এছাড়া ১০ জন করিমগঞ্জ উপজেলার এবং ৪০ জন কটিয়াদী উপজেলার সুস্থ হয়েছেন। এই সময় পর্যন্ত জেলায় মোট ১১ হাজার ৫৯০ জন শনাক্ত, ৯ হাজার ৩৫৫ জন সুস্থ এবং ২০৯ জন মৃত্যুবরণ করেছেন। বর্তমানে জেলায় করোনাভাইরাসে আক্রান্ত রোগী ২০২৬ জন। তাদের মধ্যে ৩৭ জন হাসপাতালে ও ১৯৮৯ জন হোম আইসোলেশনে রয়েছেন

মন্তব্যসমূহ (০)


Lost Password