ফ্রান্সের প্রেসিডেন্টকে থাপ্পড় মারা সেই যুবকের ৪ মাসের জেল

বিশ্বে বহুল আলোচিত খবর এক জনসংযোগে ফ্রান্সের প্রেসিডেন্ট ইমানুয়েল ম্যাক্রোঁকে থাপ্পড় মারা ২৮ বছরের যুবক এর নাম ও তার পরিচয় পাওয়া গেছে। ওই যুবকের নাম ড্যামিয়েন টারেলক।ড্যামিয়েন টারেলক চার মাসের কারাদণ্ড দেয়া হয়েছে। বৃহস্পতিবার আদালত এই আদেশ দেন। এর আগে নিজেকে চরম ডানপন্থী ‘দেশপ্রেমিক’ বলে বর্ণনা করেছিলেন ওই যুবক। (খবর এপির) ফ্রান্সের আদালত জানিয়েছে, টারেল কোনোদিন নির্বাচন করতে পারবেন না।

এছাড়া আগামী পাঁচ বছর পর্যন্ত কোনও অস্ত্রেরও মালিক হতে পারবেন না। মঙ্গলবার দক্ষিণাঞ্চলীয় ফ্রান্সে একটি জনসংযোগের সময় ম্যাক্রোঁর বাম গালে থাপ্পড় মারেন টারেল বৃহস্পতিবার আদালতে টারেল বলেন, তিনি কোনও কিছু চিন্তা না করেই ওই থাপ্পড় মেরেছেন এবং এটা অপরিকল্পিত ছিল। তিনি জানান, ফ্রান্সের ‘অধপতনের’ কারণে তিনি রাগান্বিত ছিলেন। দক্ষিণপূর্বাঞ্চলীয় ভ্যালেন্স শহরের ওই আদালতে টারেলকে সাজা দেয়া হয়, তখন তিনি নির্বিকার ছিলেন। আদালত তার আদেশে টারেলকে চার মাসের কারাদণ্ড দেন। এছাড়া আরও ১৪ মাসের সাসপেন্ডেড সাজাও ঘোষণা করেন আদালত।

অর্থাৎ এই সময়ের মধ্যে টারেল অন্য কোনও অপরাধ করলে তাকে আগের অপরাধের জন্য সাজা পেতে হবে। আদালতের রায়ের পর কান্নায় ভেঙে পড়েন টারেলের বান্ধবী। ম্যাক্রোঁকে থাপ্পড় মারার সময় ‘ডাউন উইথ ম্যাক্রোনিয়া’ স্লোগানও দেয় টারেল। তিনি নিজেকে একজন চরম ডানপন্থী ‘দেশপ্রেমিক’ হিসেবে বর্ণনা করেছেন। এছাড়া নিজেকে ইয়েলো ভেস্ট মুভমেন্টের সদস্যও দাবি করেছেন তিনি। ২০১৮ ও ২০১৯ সালে অর্থনৈতিক ওই বিক্ষোভ ম্যাক্রোঁর সরকারকে নাড়িয়ে দিয়েছিল।

মন্তব্যসমূহ (০)


Lost Password