সেচের পানি না পেয়ে আত্মহত্যাকারী দুই কৃষকের পরিবারের পাশে কৃষকদলের সভাপতি তুহিন

সেচের পানি না পেয়ে আত্মহত্যাকারী দুই কৃষকের পরিবারের পাশে কৃষকদলের সভাপতি তুহিন

সেচের পানি না পেয়ে গত ২৩ মার্চ রাজশাহীর গোদাগাড়ীর আত্মহত্যাকারী দুই কৃষক রবি মারান্ডি ও অভিনাথ মারান্ডির পরিবারের পাশে দাঁড়াতে সরেজমিন পরিদর্শন ও সমবেদনা জানানোর জন্য বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান দেশনায়ক তারেক রহমানের নির্দেশে তাদের বাড়িতে যান জাতীয়তাবাদী কৃষকদলের সভাপতি কৃষিবিদ হাসান জাফির তুহিনের নেতৃত্বে একটি প্রতিনিধি দল।

আজ ৩০ মার্চ (বুধবার) সকালে কৃষকদলের প্রতিনিধি দলটি গোদাগাড়ীর নিমঘটু ও ঈশ্বরীপুর গ্রামে যান। সেখানে তারা আত্মহত্যাকারী কৃষক অভিনাথ মারান্ডির স্ত্রী রোজিনা হেমরম ও রবি মারান্ডির স্ত্রীর সাথে সাক্ষাৎ করে তাদের পরিবারের প্রতি গভীর সমবেদনা জ্ঞাপন করেন, খোঁজখবর নেন এবং কৃষকদলের পক্ষ থেকে আর্থিক সহযোগিতা প্রদান করেন।

কৃষকদল নেতৃবৃন্দ শোকাহত পরিবারকে ভবিষ্যতে সুবিচার প্রাপ্তির আশ্বাস প্রদান করেন। এসময় জাতীয়তাবাদী কৃষকদলের সভাপতি কৃষিবিদ হাসান জাফির তুহিন বলেন, একসময়ের খড়াপীড়িত বনজঙ্গল ঘেরা লালমাটির অনুর্বর অঞ্চলের পিছিয়ে পড়া আদিবাসী মানুষের মুখে একমুঠো ভাতের সংস্থান করতে দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়া গভীর নলকূপ স্থাপন করে বরেন্দ্র অঞ্চলে ফসল উৎপাদন শুরু করেছিলেন।

মাত্র কয়েক বছরের ব্যবধানে সেখানে আওয়ামী দুর্বৃত্তের হাতে এখন নিজের ফসলের মাঠে পানি না পেয়ে হতাশায়, লজ্জায় সেই হাসিমাখা মানুষগুলো আত্মহত্যা করতে বাধ্য হচ্ছে। উল্লেখ্য যে, এ অঞ্চলের পাম্প অপারেটর স্থানীয় কৃষকলীগের সভাপতি।

প্রতিনিধি দলে উপস্থিত ছিলেন জাতীয়তাবাদী কৃষকদলের সহ—সভাপতি মামুনুর রশীদ খান, যুগ্ম সম্পাদক মোশাররফ হোসেন এমপি, মাহমুদা হাবিবা, রাজশাহী বিভাগীয় সাংগঠনিক সম্পাদক ফৌজদার শফিকুল ইসলাম বেলাল, রাজশাহী মহানগর কৃষকদলের আহবায়ক ও বিভাগীয় সহ—সাংগঠনিক সম্পাদক ওয়াদুদ হাসান পিন্টু, রাজশাহী জেলা কৃষকদলের আহবায়ক ও বিভাগীয় সহ সাংগঠনিক সম্পাদক আল আমিন সরকার টিটু সহ স্থানীয় কৃষকদলের নেতৃবৃন্দ।

মন্তব্যসমূহ (০)


Lost Password