উত্তরায় ভাতের গরম মাড় ঢেলে এক গৃহকর্মীর শরীর ঝলসে দিয়েছে গৃহকর্তার মেয়ে

ভাতের গরম পানির মাড় ঢেলে এক গৃহকর্মীর শরীর ঝলসে দিয়েছে তার গৃহকর্তার মেয়ে। ভুক্তভোগী নিয়াশার গ্রামের বাড়ি সিলেট। তার বাবার নাম আরিফুল ইসলাম। রাজধানীর উত্তরা পশ্চিম থানার ৯নং সেক্টরে ( বাসা নং-৪ সি-২০ ) নিয়াশা (১৮) নামের এক গৃহকর্মী নির্যাতনের শিকার হয়েছে।

বুধবার গৃহকর্মী নিয়াশার শরীরে ভাতের গরম পানির মাড় ঢেলে ঝলসে দেয় অভিযুক্ত গৃহকর্তার মেয়ে সুরভী। শুক্রবার বিকাল সোয়া ৫টার দিকে রাজধানীর শেখ হাসিনা জাতীয় বার্ন অ্যান্ড প্লাস্টিক সার্জারি ইনস্টিটিউটে প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে ঢামেকের ওয়ান স্টপ ক্রাইসিস সেন্টারে ভর্তি করা হয়।

উত্তরা পশ্চিম থানার এসআই কাঞ্চন রায়হান গণমাধ্যমকে এসব তথ্য জানান। পুলিশ জানিয়েছে, ট্রিপল ৯৯৯ এর কল পেয়ে তাকে উদ্ধার করে চিকিৎসার জন্য পাঠানো হয়। ভুক্তভোগী ওই গৃহকর্মী জানিয়েছেন, তার শরীরে, ভাতের গরম পানির মাড় ঢেলে বাড়িওয়ালার মেয়ে সুরভী। এ ঘটনায় জিজ্ঞাসাবাদের জন্য একজনকে থানায় আটক করা হয়েছে।

স্থানীয়রা জানিয়েছে, অভিযুক্ত এই সুরভী এক সন্তানের জননী ডিভোর্স নারী। প্রাইভেট হাসপাতালে নির্যাতিত গৃহকর্মী চিকিৎসা নিতে গেলে,হাসপাতালের চিকিৎসক, ৯৯৯ এ কল করেন।

মন্তব্যসমূহ (০)


Lost Password