একে একে বেরিয়ে আসছে থলের বিড়াল

একে একে বেরিয়ে আসছে থলের বিড়াল। উম্মোচিত হচ্ছে আলোচিত নারী পাচারকারী চক্রের অন্যতম হোতা হৃদয় বাবু ও তার সিন্ডিকেট সদস্যদের নাম। এরইমধ্যে ৫শ' আইডি চিহ্নিত করে তাদের এডমিনদের শনাক্ত করেছে পুলিশের তেজগাঁও বিভাগ।

যাদের মাধ্যমে হৃদয় বাবু উঠতি তরুণ তরুণীদের পুল পার্টিতে আকৃষ্ট করতো। আর এই কাজে টোপ হিসেবে ব্যবহার করা হতো একঝাঁক সুন্দরী তরুনীকে। রাজধানীর হাতিরঝিল নাগরিক ব্যস্ততা আর ক্লান্তি দূর করতে অনেকেরই পছন্দের জায়গা কিন্তু এখানেও ধীরে ধীরে আস্তানা। কিন্তু এখানেও ধীরে ধীরে আস্তানা গেড়েছে হৃদয়ের মতো বখাটে আর অপরাধীরা।

টিকটক আর হৃদয় ব্যবহার করত সুন্দরী তরুণীদের, তারকা হতে এসে অনেকেই তার ফাঁদে পা দিয়ে ডেকে এনেছে সর্বনাশ। এরপর আর সেখান থেকে মুক্তি মেলেনি। এই আহবানে সাড়া দিয়ে গেল বছর ১৮ সেপ্টেম্বর গাজীপুরে নির্জন আফরিন রিসোর্টে জড়ো হয়েছিল অন্তত ৭০০ থেকে ৮০০ টিকটকার যারা বিভিন্ন ছোট ছোট গ্রুপের এডমিন।

প্রত্যেক গ্রুপে ছিল একাধিক তরুণ-তরুণী। টিকটকারদের এই পুল পার্টির ছবি দেখেই সনাক্ত করা হচ্ছে বিভিন্ন গ্রুপের এডমিনদের। তাদের ধরতে চলছে অভিযান। ব়্যাব ও পুলিশের হাতে গ্রেপ্তার হাওয়া হৃদয় বাবুর সহযোগীরা জানিয়েছে গত ৮ বছরে পুল পার্টি সিন্ডিকেটের মাধ্যমে এক থেকে দেড় হাজার কিশোরী ও নারীকে পাচার করা হয়েছে।

মন্তব্যসমূহ (০)


Lost Password