নওগাঁর পত্নীতলায় ঐতিহ্যবাহী পদ্মপুকুর গ্রামীণ মেলা অনুষ্ঠিত

নওগাঁর পত্নীতলায় ঐতিহ্যবাহী পদ্মপুকুর গ্রামীণ মেলা অনুষ্ঠিত

নওগাঁর পত্নীতলা উপজেলার পদ্মপুকুর গ্রামের পদ্মপুকুর সরকারি প্রাথমিক ও উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে  ঐতিহ্যবাহী গ্রামীণ মেলা অনুষ্ঠিত হয়। নবান্ন উৎসবকে কেন্দ করে এই মেলা আয়োজন করে এলাকাবাসী।

নবান্ন উৎসব হলো নতুন আমণ ধান কাটার পর সেই ধান থেকে প্রস্তুত চালের প্রথম রান্না উপলক্ষে আয়োজিত উৎসব। সাধারণত অগ্রহায়ণ মাসে আমন ধান পাকার পর এই উৎসব অনুষ্ঠিত হয়। এরই ধারাবাহিকতায় শত বছরের বেশী সময় ধরে নওগাঁর পত্নীতলা উপজেলার নজিপুর ইউনিয়নের পদ্মপুকুর গ্রামের পাশে পদ্ম পুকুর সরকারি প্রাথমিক ও উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে হয়ে আসছে ঐতিহ্যবাহী গ্রামীণ এ মেলা।

জানা যায়, প্রতিবছরে ইংরেজি তারিখের ১৭ নভেম্বরে বসে এই মেলা। নবান্নের এই মেলাকে ঘিরে গ্রামীণ মানুষের মধ্য এক অন্য রকম উৎসব আমেজে মুখোর হয়ে ওঠেছে আসপাশের গ্রাম গুলো। এক দিনের এ মেলা উপলক্ষে বিভিন্ন এলাকা থেকে দোকানীরা আগের দিন এসে দোকানে মিষ্টি, বাঁশ, বেত, মাটির তৈরী নকশি পাতিল, মাটির ব্যাংক, পুতুল , কাঠের তৈরী ফার্নিচার, কসমেটিক, খেলনা, বাশি, বেলুন, ঘুর্নি, লোহার তৈরী হাঁসুয়া বটি, চাকু,কাগজের ফুল নানা রকম মুখরোচক খাবারেরর দোকান দিয়ে নানান জিনিসপত্রের পশরা সাজিয়ে বসেন।

স্থানীয়রা জানান, বাবা দাদার হাত ধরে খুব ছোট থেকে এ মেলায় আসছি। বছরের এই এক দিনের জন্য নবান্নের মেলা হয়। মেলাতে বিভিন্ন অঞ্চল থেকে মানুষেরা আসেন। এখানে সারা বছরের সংসারের প্রয়োজনীয় নানা রকম জিনিসপত্র পাওয়া যায়। মানুষেরা এগুলো কিনে সারাবছরই ব্যবহার করে থাকেন।

মেলার এক পাশে চলে বউ মেলা। বউ মেলায় বিশেষ করে নারীদের কসমেটিক দোকান গুলোতে উপচে পড়া ভীড়। আশপাশের কয়েকটি গ্রামের শত শত নারীদের বউ মেলায় আগমন ঘটে।

মন্তব্যসমূহ (০)


Lost Password