রাজশাহীতে স্ত্রীর আপত্তিকর ছবি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ভাইরাল

রাজশাহীতে স্ত্রীর আপত্তিকর ছবি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ভাইরাল

স্বামীকে তালাক দেওয়ায় রাজশাহীতে স্ত্রীর আপত্তিকর ছবি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ভাইরাল। অভিযোগ পেয়ে পুলিশ রবিউল ইসলাম  নামের এক ব্যক্তিকে গ্রেফতার করেছে।রবিবার রাতে রাজশাহী মহানগর পুলিশের সাইবার ক্রাইম ইউনিটের সহায়তায় দামকুড়া থানা পুলিশ রবিউল ইসলামকে গ্রেফতার করে। তিনি সেনাবাহিনীর লেফটেন্যান্ট কর্নেল পরিচয় দিয়ে মানুষের সঙ্গে প্রতারণা করতেন। সোমবার দুপুরে রাজশাহী মহানগর পুলিশের মুখপাত্র গোলাম রুহুল কুদ্দুস বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। তিনি জানান, রবিউল পাবনার সুজানগরের এক নারীর সঙ্গে ফেসবুকে বন্ধুত্ব গড়ে তোলেন।

একপর্যায়ে গড়ে তোলেন প্রেমের সম্পর্ক। তারপর কৌশলে ওই নারীকে দিয়ে তার স্বামীকে তালাক দেওয়ান। এরপর গত ১৩ আগস্ট রবিউল ওই নারীকে বিয়ে করেন। বিয়ের পর থেকেই গোপনে রবিউল তাদের অন্তরঙ্গ মুহূর্তের বিভিন্ন আপত্তিকর ছবি তুলে রাখেন। ওই নারীর অভিযোগ, রবিউল প্রায়ই মোবাইল ফোনে লেফটেন্যান্ট কর্নেল পরিচয় দিয়ে বিভিন্ন সরকারি কর্মকর্তা ও সাধারণ মানুষের সাথে কথা বলতেন। তাদের সহযোগিতার নামে প্রতারণা করতেন। পাশাপাশি রবিউল তাকেও টাকার জন্য চাপ দিতে থাকেন। তখন তিনি বুঝতে পারেন, রবিউল আসলে একজন প্রতারক।

তাই গত ১৪ সেপ্টেম্বর রবিউলকে তিনি তালাক দেন। এতে ক্ষিপ্ত হয়ে রবিউল ওই নারীর নামেই একটি ফেসবুক অ্যাকাউন্ট খুলে তাদের অন্তরঙ্গ মুহূর্তের ছবি আত্মীয়স্বজনকে পাঠাতে শুরু করেন। টাকা না দিলে এসব কর্মকাণ্ড বন্ধ হবে না বলেও হুমকি দেন। নিরুপায় হয়ে ওই নারী দামকুড়া থানায় একটি অভিযোগ করেন।এরপর সাইবার ক্রাইম ইউনিটের সহায়তায় পুলিশ রোববার রাতে রাজশাহী মহানগরীর কোর্ট স্টেশন এলাকা থেকে রবিউলকে গ্রেফতার করে। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে প্রতারক রবিউল তার অপরাধের কথা স্বীকার করেছেন।তার বিরুদ্ধে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলা করা হয়েছে। সোমবার বিকালে তাকে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়েছে।

মন্তব্যসমূহ (০)


Lost Password