নওগাঁর ধামইরহাটে ফসলের ক্ষেত থেকে গৃহবধূর রক্তাক্ত মরদেহ উদ্ধার

নওগাঁর ধামইরহাটে ফসলের ক্ষেত থেকে গৃহবধূর রক্তাক্ত মরদেহ উদ্ধার

নওগাঁ জেলার ধামইরহাট উপজেলায় ফসলের ক্ষেত থেকে জান্নাতুন ফেরদৌস নামে এক গৃহবধূর রক্তাক্ত মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। ধামইরহাট থানা পুলিশ বলেন, কেউ তাকে আঘাত করে মৃত্যু নিশ্চিত হওয়ার পর মাঠে ফেলে গেছে। তার মাথাসহ শরীরের বিভিন্ন জায়গায় আঘাতের চিহ্ন রয়েছে।

উপজেলার আলমপুর ইউনিয়নের মঙ্গলিয়া গ্রাম থেকে বৃহস্পতিবার দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে মরদেহ উদ্ধার করা হয়। ৩৬ বছর বয়সী জান্নাতুন ওই গ্রামের ইফতেখার আশরাফের স্ত্রী। জিজ্ঞাসাবাদের জন্য ইফতেখারকে হেফাজতে নিয়েছে পুলিশ। বুধবার সন্ধ্যায় জান্নাতুন বাড়ি থেকে এক প্রতিবেশীর বাড়ি যাওয়ার কথা বলে বের হয়। অনেকক্ষণ পরও না ফেরায় ওই প্রতিবেশীর বাড়িতে খোঁজ নিয়ে জানা যায়, সেখানে সে যায়নি। বিভিন্ন জায়গায় খুঁজে রাতে তাকে পাওয়া যায়নি। বেলা ১১টার দিকে স্থানীয় লোকজন মাঠে জান্নাতুনের মরদেহ দেখে আমাদের জানায়। আমার স্ত্রীর মাথায় গভীর ক্ষত এবং শরীরের বিভিন্ন স্থানে আঘাতের চিহ্ন রয়েছে।

ধামইরহাট থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) কে এম রাকিবুল হুদা জানান, তার মাথায় ভারী কিছু দিয়ে আঘাতের চিহ্ন রয়েছে। শরীরের অন্য স্থানেও আঘাতের চিহ্ন আছে। কেউ তাকে আঘাত করে মৃত্যু নিশ্চিত হওয়ার পর মাঠে ফেলে গেছে।

ওসি জানান, এ ঘটনায় জান্নাতুনের স্বামী ইফতেখারকে বেলা ৩টার দিকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য থানা হেফাজতে নেয়া হয়েছে। হত্যার তদন্ত চলছে। দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে পুলিশ মরদেহ উদ্ধার করে নওগাঁ জেনারেল হাসপাতাল মর্গে নিয়েছে বলে জানিয়েছেন ওসি রাকিবুল।

মন্তব্যসমূহ (০)


Lost Password