তদন্ত রিপোর্ট অনুযায়ী টিটিই শফিকুল ইসলাম সম্পূর্ণ নির্দোষ

তদন্ত রিপোর্ট অনুযায়ী টিটিই শফিকুল ইসলাম সম্পূর্ণ নির্দোষ

দেশের আলোচির ঘটনা রেলমন্ত্রীর তিন আত্মীয়কে বিনা টিকিটে ট্রেন ভ্রমণের দায়ে জরিমানা করায় বরখাস্ত করা হয় টিটিই শফিকুল ইসলামকে। পরে তা তদন্ত করে দেখা গেল টিটিই শফিকুল ইসলাম সম্পূর্ণ নির্দোষ।

তদন্ত কমিটির জমা দেওয়া প্রতিবেদনে এমনটিই বলছে।

সোমবার বেলা সাড়ে ১১টার দিকে নিজ কার্যালয়ে প্রতিবেদন জমা নেন পাকশী বিভাগীয় রেলওয়ের ব্যবস্থাপক (ডিআরএম) শাহিদুল ইসলাম। তদন্ত কমিটি গঠনের পর পাঁচ কার্যদিবসে তথা ১২ মে এ রিপোর্ট জমা দেওয়ার তারিখ ছিল। 

কিন্তু পাকশী বিভাগীয় রেলওয়ে ব্যবস্থাপক (ডিআরএম) কর্মস্থলে উপস্থিত না থাকায় তদন্ত কমিটি রিপোর্ট দাখিল করতে পারেনি।

এর আগে গত ৭ মে ঘটনার প্রকৃত কারণ খুঁজে বের করতে তিন সদস্যের তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়। এতে পাকশী বিভাগীয় রেলওয়ে সহকারী পরিবহণ কর্মকর্তা (এটিও) সাজেদুল ইসলামকে প্রধান এবং সহকারী নির্বাহী প্রকৌশলী (এইএন) শিপন আলী ও রেলওয়ে নিরাপত্তা বাহিনীর সহকারী কমান্ডেন্ট (এসিআরএনবি) আবু হেনা মোস্তফা কামালকে সদস্য করা হয়।

প্রসঙ্গত, রেলমন্ত্রীর ‘আত্মীয় পরিচয়’ দিয়ে বিনা টিকিটে ট্রেনে ভ্রমণ করায় গত ৪ মে রাতে ঈশ্বরদী থেকে ঢাকাগামী আন্তঃনগর ‘সুন্দরবন এক্সপ্রেস’-এর তিন যাত্রীকে জরিমানা করেছিলেন টিটিই শফিকুল। কিন্তু রেলমন্ত্রী নূরুল ইসলাম সুজনের স্ত্রীর অভিযোগের ভিত্তিতে পর দিন তাকে সাময়িক বরখাস্ত করেন পাকশী বিভাগীয় রেলওয়ের বাণিজ্যিক কর্মকর্তা (ডিসিও) নাসির উদ্দিন।

বিষয়টি গণমাধ্যমে এলে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে শুরু হয় সমালোচনা। পরিপ্রেক্ষিতে গত ৮ মে দুপুরে শফিকুলের বরখাস্তের আদেশ প্রত্যাহার করেন পাকশী বিভাগীয় রেলওয়ের ব্যবস্থাপক শাহিদুল ইসলাম।

একই সঙ্গে তিনি বরখাস্তকারী নাসির উদ্দিনকে শোকজ করেন।

মন্তব্যসমূহ (০)