হাসপাতাল থেকে পালিয়ে গিয়েছিলেন তিনি, করোনা পাওয়া গেল তাঁর রক্তে

মধ্যপ্রদেশের রাজ্য সরকারকে মঙ্গলবারের মধ্যে সংখ্যাগরিষ্ঠতা প্রমাণ করার নির্দেশ দিলেন‌ রাজ্যপাল। করোনা ভাইরাসের জন্য ১০ দিনের ব্যবধানের সিদ্ধান্তকে খারিজ করে মঙ্গলবারই আস্থা ভোট করানোর কথা বললেন তিনি।
২২ জন বিধায়ক–সহ জ্যোতিরাদিত্যের কংগ্রেস ত্যাগে টালমাটাল অবস্থা কমলনাথ সরকারের। তারপরেই আস্থা ভোট করার কথা ওঠে। সেইমতো সোমবার সকালে বিধানসভার অধিবেশন বসে সেখানে। করোনা আতঙ্কে রাজ্যপাল আগামী ২৬ তারিখ পর্যন্ত মুলতুবি ঘোষণা করেন। কিন্তু যেভাবেই হোক আস্থাভোট করাতে আপ্রাণ চেষ্টা চালিয়েছে মধ্যপ্রদেশ বিজেপি। রাজ্যপালের কাছে বিজেপি দাবি জানিয়েছে, বর্তমান রাজ্য সরকারের সংখ্যাগরিষ্ঠতা না থাকায় তারা ক্ষমতায় থাকার অধিকার হারিয়েছে। কিন্তু তাও জোর করে ক্ষমতা আঁকড়ে রেখেছে। করোনার নাম করে আস্থা ভোট পিছোতে চাইছে তারা। রাজ্যপাল যেন অবিলম্বে আস্থাভোটের নির্দেশ দেন। এমনকি তাঁরা সুপ্রিম কোর্টেরও দ্বারস্থ হন। সন্ধ্যেবেলাই সেই লক্ষ্যে সাফল্য হয় মধ্যপ্রদেশ বিজেপি। মঙ্গলবারই আস্থা ভোটের নির্দেশ দেন রাজ্যপাল। তিনি জানালেন, ‘‌১৭ তারিখের মধ্যে আস্থাভোট না করলে ধরে নেওয়া হবে, আপনাদের সংখ্যাগরিষ্ঠতা নেই।’‌‌‌‌

মন্তব্যসমূহ (০)


লগইন করুন


Remember me Lost your password?

Don't have account. Register

Lost Password


মন্তব্য করতে নিবন্ধন করুন