বোরকা পরে ঘরে ঢুকে ২ সন্তানকে রুমে আটকে নারীকে গণধর্ষণ

পটুয়াখালীর রাঙ্গাবালী উপজেলায় এক গৃহবধূকে দলবেঁধে ধর্ষণের ঘটনা ঘটেছে। সংঘবদ্ধ ধর্ষণ শেষে গৃহবধূর বাড়ি থেকে টাকা-পয়সা ও স্বর্ণালঙ্কার লুট করে নিয়ে যান তারা।শুক্রবার (১৬ অক্টোবর) রাত সাড়ে ৯টার দিকে উপজেলার চরমন্তাজ ইউনিয়নের চরলক্ষ্মী গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। নির্যাতনের শিকার গৃহবধূ পটুয়াখালী সদর হাসপাতালে চিকিৎসাধীন।

এ ঘটনায় শাকিব (২২) ও আবদুল হাদী (২৪) নামে দুইজনকে আটক করেছে পুলিশ। এ ঘটনায় জড়িত আরিফ চৌকিদারকে (২৫) ধরতে অভিযান চালাচ্ছে পুলিশ।ভুক্তভোগী গৃহবধূর স্বামী জানান, ঘটনার দিন রাতে তিনি বাজারে ছিলেন। এ সুযোগে রাত ৯টার দিকে প্রতিবেশী শাকিল, আরিফ ও আবদুল হাদী বোরকা পরে তাদের ঘরে প্রবেশ করেন।এরপর গৃহবধূর হাত-পা বেঁধে দুই সন্তানকে পাশের রুমে আটকে দলবেঁধে ধর্ষণ করা হয়। ধর্ষণ শেষে গৃহবধূর বাড়ি থেকে টাকা-পয়সা ও স্বর্ণালঙ্কার লুট করে নিয়ে যান তারা।

পরে অচেতন অবস্থায় উদ্ধার করে শুক্রবার রাতে গৃহবধূকে গালাচিপা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়। গালাচিপা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের চিকিৎসকরা প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে গৃহবধূকে পটুয়াখালী হাসপাতালে পাঠান।শনিবার (১৭ অক্টোবর) সকালে তাকে পটুয়াখালী হাসপাতালে ভর্তি হয়।পটুয়াখালী হাসপাতালের তত্ত্বাবধায়ক চিকিৎসক আব্দুল মতিন বলেন, নির্যাতনের শিকার গৃহবধূর মেডিকেল পরীক্ষা সম্পন্ন হয়েছে। তার চিকিৎসা চলছে।

ঘটনার পর অভিযান চালিয়ে এরই মধ্যে শাকিল ও আবদুল হাদীকে আটক করেছে পুলিশ। অপর অভিযুক্ত আরিফ চৌকিদারকে ধরতে অভিযান চালাচ্ছে পুলিশ।পটুয়াখালীর অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মো. মাহফুজুর রহমান বলেন, ঘটনার পর অভিযান চালিয়ে দুইজনকে আটক করেছে পুলিশ। অপর অভিযুক্তকেও আটক করা হবে।

মন্তব্যসমূহ (০)


লগইন করুন


Remember me Lost your password?

Don't have account. Register

Lost Password


মন্তব্য করতে নিবন্ধন করুন