হেফাজত ইসলাম ও কওমি মাদরাসার সংবাদ বর্জনের সিদ্ধান্ত

সাংবাদিকদের সঙ্গে অশোভন আচরণের কারণে ব্রাহ্মণবাড়িয়ার কওমি মাদরাসা সম্পর্কিত সকল সংবাদ বর্জনের সিদ্ধান্ত নিয়েছেন সাংবাদিকরা।

গতকাল বুধবার দুপুরে ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রেসক্লাব মিলনায়তনে আয়োজিত এক প্রতিবাদ সমাবেশে সাংবাদিক নেতারা এ সিদ্ধান্ত নেন।

গেল ২০ জানুয়ারি আহমদীয়া সম্প্রদায়ের বিরুদ্ধে মাদরাসা ছাত্র-শিক্ষকদের একটি মানববন্ধন চলাকাল কয়েকজন  ছাত্র ও শিক্ষক সাংবাদিকদের সঙ্গে অশোভন আচরণ করে। এ ছাড়াও ওই মানববন্ধনের সংবাদ জাতীয় পত্রিকায় না আসায় সাংবাদিকদের সঙ্গে খারাপ আচরণ করা হয়। এর প্রতিবাদে এ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়।

ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রেসক্লাবের সভাপতি খ. আ. ম. রশিদুল ইসলামের সভাপতিত্বে প্রতিবাদ সমাবেশে বক্তব্য রাখেন, প্রেসক্লাবের সাবেক সভাপতি সৈয়দ মিজানুর রেজা, মোহাম্মদ আরজু, ব্রাহ্মণবাড়িয়া টেলিভিশন জার্নালিস্ট অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি মনজুরুল আলম, ব্রাহ্মণবাড়িয়া টেলিভিশন জার্নালিস্ট অ্যাসোসিয়েশনের সহ-সভাপতি আ.ফ.ম কাউছার এমরান, প্রেসক্লাবের সাবেক সাধারণ সম্পাদক মো. সাদেকুর রহমান, কবি জয়দুল হোসেন, মো. বাহারুল ইসলাম মোল্লা, আবদুন নূর, পিযুষ কান্তি আচার্য, নজরুল ইসলাম শাহজাদা, নিয়াজ মুহাম্মদ খান বিটু, মো. মজিবুর রহমান, মো. মনির হোসেন, উজ্জ্বল চক্রবর্তী, মীর মোহাম্মদ শাহীন, তোফাজ্জল হোসেন ও মনিরুজ্জামান পলাশ। 

সভায় সর্বসম্মতিক্রমে ব্রাহ্মণবাড়িয়া জামিয়া ইসলামিয়া ইউনুছিয়া মাদরাসাসহ জেলার সকল কওমি মাদরাসা এবং হেফাজতে ইসলামের সংবাদ অনির্দিষ্টকালের জন্য বর্জনের সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়।

মন্তব্যসমূহ (০)


লগইন করুন


Remember me Lost your password?

Don't have account. Register

Lost Password


মন্তব্য করতে নিবন্ধন করুন