সরকারকে বেকায়দায় ফেলতে এত অপপ্রচার

সরকারকে বেকায়দায় ফেলতে এত অপপ্রচার

 স্বাধীনতাবিরোধীরা বঙ্গবন্ধু হত্যাকাণ্ডের আগে আওয়ামী লীগের নামে নানা ধরনের প্রোপাগান্ডা শুরু করেছিল। এখন আবার তাদের উত্তরসূরীরা সরকারকে নিয়ে একইভাবে অপপ্রচার শুরু করেছে। এদের বিরুদ্ধে সোচ্চার থাকতে হবে।

আজ শুক্রবার বিকেলে সিলেটের কবি নজরুল অডিটোরিয়ামে জেলা ও মহানগর ছাত্রলীগ আয়োজিত বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ও বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব স্মরণে আলোচনাসভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আব্দুল মোমেন এসব কথা বলেন। অপপ্রচারকারের বিরুদ্ধে সোচ্চার থাকতে ছাত্রলীগ নেতাকর্মীদের প্রতি আহ্বান জানিয়ে মন্ত্রী বলেন, একটি মহল নানাভাবে বর্তমান সরকারের বিরুদ্ধে অপপ্রচারে লিপ্ত রয়েছে।

এর মাধ্যমে তারা সরকারের জনকল্যাণমূলক কাজকে আড়াল করতে চায়। জনগণের মধ্যে বিভ্রান্তি ছড়াতে এবং বঙ্গবন্ধুকন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বর্তমান সরকারকে বেকায়দায় ফেলতে তাদের এমন অপপ্রয়াস। ছাত্রলীগ নেতাকর্মীদের উদ্দেশে তিনি আরো বলেন, ‘আপনারা ঐক্যবদ্ধভাবে এই চক্রটিকে মোকাবেলা করুন। তাদের অপপ্রচারের জবাব দিন। জনগণের কাছে গিয়ে তাদের বোঝাতে হবে, যুদ্ধকালীন এই বিরূপ পরিস্থিতিতেও বিশ্বের অন্যান্য দেশ থেকে আমরা কতটা ভালো আছি।

সবিস্তারে তা তুলে ধরতে হবে। ’ পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, ‘বাংলাদেশের একটি অন্যতম প্রধান ঐতিহ্যবাহী সংগঠনের নাম ছাত্রলীগ। দেশের এমন অনেক অর্জন আছে যার সাথে ছাত্রলীগের নাম জড়িত। সেই ঐতিহ্যের প্রতি শ্রদ্ধাশীল থেকে কাজ করতে হবে। সতর্ক হয়ে কাজ করতে হবে- যাতে আপনাদের কোনো বদনাম না হয়। ’ তিনি বলেন, ‘বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ক্ষুধা ও দারিদ্র্যমুক্ত একটা দেশের স্বপ্ন দেখেছিলেন।

আমরা ২০৩০ সালের মধ্যে দারিদ্র্যমুক্ত দেশ গড়ব। ’ সিলেট মহানগর ছাত্রলীগের সভাপতি কিশোয়ার জাহান সৌরভের সভাপতিত্বে সভায় বিশেষ অতিথির বক্তব্য দেন, আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক শফিউল আলম চৌধুরী নাদেল, সিলেট জেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি, সদর উপজেলা চেয়ারম্যান আশফাক আহমদ, মহানগর আওয়ামী লীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি আসাদ উদ্দিন আহমদ, জেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি সুজাত আলী রফিক।

মন্তব্যসমূহ (০)


Lost Password