নদীর পানিতে মিলছে প্যারাসিটামল, নিকোটিন, ক্যাফেইন এবং মৃগীরোগ ও ডায়াবেটিসের ওষুধ

নদীর পানিতে মিলছে প্যারাসিটামল, নিকোটিন, ক্যাফেইন এবং মৃগীরোগ ও ডায়াবেটিসের ওষুধ

সারা বিশ্বের নদীগুলোতে ওষুধ এবং ওষুধ তৈরির সামগ্রী মিশে পানি দূষিত হচ্ছে। পরিবেশ এবং বিশ্ব স্বাস্থ্যের জন্য এটা হুমকি হিসেবে দেখানো হয়েছে সাম্প্রতিক এক গবেষণায়। ইংল্যান্ডের ইয়র্ক ইউনিভার্সিটির গবেষকরা দেখেছেন, নদীদূষণের সঙ্গে জড়িত রয়েছে প্যারাসিটামল, নিকোটিন, ক্যাফেইন এবং মৃগীরোগ ও ডায়াবেটিসের ওষুধ।

বিশ্ব পরিসরে বৃহদাকারে গবেষণা করে সিদ্ধান্তে এসেছেন গবেষকরা। সেই গবেষণায় পাওয়া তথ্যের ভিত্তিতে বিবিসির প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, পাকিস্তান, বলিভিয়া ও ইথিওপিয়ার নদীগুলো সবচেয়ে বেশি দূষিত। সেই তুলনায় আইসল্যান্ড, নরওয়ে এবং আমাজন রেইন ফরেস্টের নদীগুলো সবচেয়ে ভালো রয়েছে।

নদীর পানিতে থাকা ওষুধসামগ্রীর অনেক যৌগের প্রভাব এখনো অনেকাংশেই অজানা। তবে এটা এরই মধ্যে ভালোভাবে জানা গেছে যে, মানুষের গর্ভনিরোধক পিল নদীর পানিতে মিশে যাওয়ার ফলে মাছের বিকাশ এবং প্রজননকে প্রভাবিত করতে পারে। বিজ্ঞানীদের শঙ্কা, নদীতে ওষুধের উপস্থিতি থাকায় বাস্তবে ওষুধের কার্যকারিতা সীমিত হয়ে যেতে পারে। শতাধিক দেশের এক হাজারের বেশি জায়গা থেকে পানির নমুনা নিয়ে পরীক্ষা করেছেন গবেষকরা।

তার মধ্যে ২৫৮ নদীর পানিতে ওষুধসামগ্রীর সক্রিয় উপাদান পাওয়া গেছে; যা জলজ প্রাণীর জন্য অনিরাপদ বলে মনে করা হচ্ছে। ডা. জন উইলকিনসন বলেছেন, 'সাধারণত যা ঘটে তা হলো- ‌আমরা এই রাসায়নিকগুলো গ্রহণ করি। সেগুলো আমাদের শরীরে কিছু কাঙ্ক্ষিত প্রভাব রেখে দেহ থেকে বেরিয়ে যায়।

কিন্তু সবচেয়ে আধুনিক বর্জ্য পানি শোধনাগারগুলোও নদী বা হ্রদের এই যৌগগুলোকে ধ্বংস করতে সম্পূর্ণরূপে সক্ষম নয়। ' বিভিন্ন নদীতে শনাক্ত করা ওষুধের যৌগের মধ্যে কমন রয়েছে দুটি। এগুলো মৃগীরোগ ও ডায়াবেটিসের চিকিৎসায় ব্যবহৃত হয়। এ ছাড়া ক্যাফেইন, নিকোটিন ও প্যারাসিটামল পাওয়া গেছে। আফ্রিকার নদীগুলোতে ম্যালেরিয়া চিকিৎসায় ব্যবহারের ওষুধের যৌগ বেশি পাওয়া গেছে।

সূত্র : বিবিসি।

মন্তব্যসমূহ (০)


Lost Password