নারায়ণগঞ্জে পুলিশের সাথে এলাকাবাসীর তুমুল সংঘর্ষ,আহত ১০

নারায়ণগঞ্জে পুলিশের সাথে এলাকাবাসীর তুমুল সংঘর্ষ,আহত ১০

নারায়ণগঞ্জের সিদ্ধিরগঞ্জে বিহারী কলোনীর এলাকাবাসীর সাথে পুলিশের সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। ৪ পুলিশ সদস্যসহ আহত হয়েছেন অন্তত ১০। নারায়ণগঞ্জের সিদ্ধিরগঞ্জে মসজিদের ভেতরে এক পুলিশ সদস্যকে মারধরের ঘটনায় জড়িত সন্দেহে গ্রেপ্তার অভিযানে যাওয়া পুলিশ সদস্যদের সঙ্গে বিহারি কলোনির বাসিন্দাদের সংঘর্ষ হয়েছে। এতে অন্তত চার পুলিশ সদস্যসহ অন্তত ১০ জন আহত হন। পরে টিয়ারশেল ও রাবার বুলেট নিক্ষেপ করে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।

গ্রেপ্তার করা হয় ৩০ জনকে। সোমবার সকাল সাড়ে ৯টার দিকে আদমজী-চাষাড়া সড়কে এ ঘটনা ঘটে। প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, সিদ্ধিরগঞ্জে আদমজী শাহী জামে মসজিদে পুলিশের ওপর হামলার ঘটনায় সোমবার ভোর থেকে সুমিলপাড়া বিহারি কলোনিতে বিশেষ অভিযান চালায় আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যরা। অভিযানে অন্তত ৩০ জনকে গ্রেপ্তার করা হয়। এর প্রতিবাদে সকাল সাড়ে ৯টার দিকে কলোনির বাসিন্দারা আদমজী-চাষাড়া সড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভ করতে থাকে।

এসময় পুলিশ গিয়ে তাদের রাস্তা থেকে সরিয়ে নিতে চাইলে বাসিন্দারা পুলিশকে লক্ষ্য করে ইট-পাটকেল ছুড়েন। পরে পুলিশ পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ করতে টিয়ারশেল ও রাবার গুলি নিক্ষেপ করে। ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে সিদ্ধিরগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মশিউর রহমান বলেন, শুক্রবার জুমার নামাজের পর সিদ্ধিরগঞ্জে আদমজী বিহারি ক্যাম্প এলাকায় আদমজী শাহী জামে মসজিদের ভেতরে এক পুলিশ সদস্যকে মারধরের ঘটনা ঘটে।

এ ঘটনায় ৫০ জনের নাম উল্লেখসহ ১২৫ জনকে অজ্ঞাতনামা আসামি করে মামলা হয়। মামলার ৩০ আসামিকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। ওসি আরও জানান, সকালে বিহারি কলোনির লোকজন সড়ক অবরোধ করে বিশৃঙ্খলা করতে চাইলে পুলিশ বাধা দেয়। এসময় পুলিশকে লক্ষ্য করে তারা ইট-পাটকেল ছুড়ে। পরে পুলিশ পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে ৫০ রাউন্ড টিয়ারশেল ও শতাধিক রাবার বুলেট নিক্ষেপ করে পরিস্থিতি শান্ত করে। এ ঘটনায় চার পুলিশ সদস্যসহ ১০ জন আহত হয়েছেন। তাদের স্থানীয় হাসপাতালে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে।

মন্তব্যসমূহ (০)