আগামীকাল থেকে পরিবহন মালিকরা, গণপরিবহন চালু করতে চান

স্বাস্থ্যবিধি মেনে অর্ধেক আসন খালি রেখে আগামীকাল থেকেই গণপরিবহন চালু করার দাবি জানিয়েছে বাংলাদেশ বাস-ট্রাক ওনার্স অ্যাসোসিয়েশন। বৃহস্পতিবার (২৯ এপ্রিল) দুপুরে গাবতলীতে সংগঠনটির কার্যালয়ে লকডাউনে ক্ষতিগ্রস্ত সড়ক পরিবহন মালিক ও শ্রমিকদের পুনর্বাসনে আর্থিক সহযোগিতা অনুদানসহ চার দফা দাবি পেশ করা করা হয় সরকারের উদ্দেশ্যে।

সংগঠনটির চেয়ারম্যান রমেশ চন্দ্র ঘোষ বলেন, করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাবের কারণে ক্ষতিগ্রস্ত গণপরিবহন মালিক ও শ্রমিকদের সহযোগিতায় বিশেষ প্রণোদনা হিসেবে ৫ হাজার কোটি টাকা বরাদ্দ করতে হবে। ব্যাংক ও আর্থিক প্রতিষ্ঠান ও ব্যক্তি মালিকানাধীন প্রতিষ্ঠানের সুদ মওকুফসহ কিস্তি আগামী ৩০ জুন ২০২২ পর্যন্ত স্থগিত করতে হবে এবং লোন একাউন্ট ৩০ জুন ২০২২ পর্যন্ত ক্লাসিফাইড করা যাবে না।

গণপরিবহন মালিকদের এক শতাংশ ডাউনপেমেন্ট দিয়ে সকল ক্লাসিফাইড লোন হালনাগাদ করার সুযোগ রাখতে হবে। দেশের স্বার্থে এবং জনগণের স্বার্থে পুনরায় এই দুর্যোগে মোকাবিলা করে স্বাস্থ্যবিধি মেনে গণপরিবহন চালু করার আকুল আবেদনও জানান তিনি। উল্লেখ্য,তৃতীয় দফা লকডাউন বৃদ্ধি করা হয়েছে। গত উনিশ দিন কোন গণপরিহন চলাচল করছে না সারাদেশে। এমন অবস্থা চলবে আগামি ৫ মে পর্যন্ত।

মন্তব্যসমূহ (০)


Lost Password


মন্তব্য করতে নিবন্ধন করুন