মরতে যাচ্ছি! স্ত্রীর কাছে করোনার নাটক করে প্রেমিকার সঙ্গে বাস যুবকের

পরকীয়া নতুন কোনও বিষয় নয়। বহু মানুষই বর্তমানে একাধিক সম্পর্কে জড়িত থাকেন। কিন্তু মহারাষ্ট্রের নভি মুম্বইয়ের যুবকের স্ত্রীকে প্রেমিকার কথা জানানোর মতো সৎ সাহস নেই। কিন্তু প্রেমিকাকে ছেড়ে স্ত্রীর সঙ্গে সুখে শান্তিতে সংসার করারও ইচ্ছা নেই। তাই ওই যুবক যা করল তা বলিউড ছবির চিত্রনাট্যকেও হার মানাবে।

গত ২১ জুলাই ওই যুবক স্ত্রীকে জানায় তার করোনা রিপোর্ট পজিটিভ এসেছে। তাই আর সে বাঁচতে চায় না। সে কারণে বাড়ি ছেড়ে বেরিয়ে যাচ্ছে। স্ত্রীর হাজার বাধানিষেধ অগ্রাহ্য করে বাইক সঙ্গে নিয়ে বেরিয়ে যায় সে। মোবাইলও সুইচড অফ করে দেয়। অসহায় হয়ে পড়েন ওই যুবকের স্ত্রী। তিনি তাঁর জামাইবাবুকে ঘটনার কথা জানান। তড়িঘড়ি শ্যালিকার বাড়িতে আসেন তিনি। পরেরদিনই ভাসি এলাকায় ওই যুবকের মোটর বাইক, টাকা রাখার ব্যাগ, হেলমেট, বাইকের চাবি খুঁজে পান তিনি। এরপরই থানায় যান স্ত্রী এবং তাঁর জামাইবাবু। নিখোঁজ ডায়েরি করেন।

আদৌ ওই যুবক করোনা পরীক্ষা করিয়েছেন কিনা, তা জানতে পুলিশও বিভিন্ন কোভিড টেস্ট সেন্টারে খোঁজখবর নেয়। কিন্তু কোনও জায়গাতেই তার খোঁজ পাওয়া যায়নি। এদিকে, মোবাইল সুইচড অফ থাকায় ওই যুবকের লোকেশন ট্র্যাক করাও সম্ভব হচ্ছিল না। তবে গত সপ্তাহে আচমকাই বেশ কিছুক্ষণের জন্য ওই যুবক তার মোবাইল অন করেন। ব্যস! তাতেই বিপদ। পুলিশ প্রায় সঙ্গে সঙ্গে যুবকের টাওয়ার লোকেশন ট্র্যাক করে। এরপর জানা যায় ইন্দোরে রয়েছে সে। সেখানেই হানা দেয় পুলিশ। ওই এলাকায় গিয়ে তদন্তকারীরা জানতে পারেন, যুবক পরিচয় বদলে একটি ভাড়াবাড়িতে প্রেমিকার সঙ্গে বসবাস করেছে। এরপর পুলিশ হাতেনাতে ওই যুবককে পাকড়াও করে। নভি মুম্বইয়ে স্ত্রীর কাছে আবারও ফিরিয়ে দেওয়া হয়েছে ওই যুবককে।

মন্তব্যসমূহ (০)


লগইন করুন


Remember me Lost your password?

Don't have account. Register

Lost Password


মন্তব্য করতে নিবন্ধন করুন