কুপ্রস্তাবে রাজি না হওয়ায় ঘরে ঢুকে স্কুলছাত্রীকে গণধর্ষণ

যশোরের অভয়নগর উপজেলায় সপ্তম শ্রেণির এক ছাত্রী গণধর্ষণের শিকার হয়েছে।

গতকাল শুক্রবার উপজেলার দেয়াপাড়া গ্রামে এই ঘটনা ঘটে।

নির্যাতনের শিকার অসুস্থ স্কুলছাত্রীকে প্রথমে অভয়নগর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়। সেখানে তার অবস্থার অবনতি হলে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়।

নির্যাতনের শিকার স্কুলছাত্রীর মা জানান, দেয়াপাড়া গ্রামের প্রভাবশালী হাফিজুর খানের বখাটে ছেলে রিয়াজ খান (২০) দীর্ঘদিন ধরে তার মেয়েকে কুপ্রস্তাব দিয়ে আসছিল। তার প্রস্তাবে রাজি না হওয়ায় রিয়াজ খান ক্ষিপ্ত  হয়ে তাকে  দেখে নেওয়ার হুমকি দেয়। ঘটনার দিন তিনি মেয়েকে একা বাড়িতে রেখে পাশের বাড়ি বিয়ে দেখতে যান।

এ সুযোগে রিয়াজ তার দুই বন্ধুকে নিয়ে বাড়িতে আসে। পরে তারা ঘরের দরজা বন্ধ করে তিন বন্ধু মিলে পালাক্রমে ধর্ষণ করে।  তিনি বাড়ি ফিরে মেয়েকে ঘরের মধ্যে রক্তাক্ত ও অজ্ঞান অবস্থায়  দেখতে পান। তার চিৎকারে প্রতিবেশীরা এগিয়ে আসে। পরে প্রতিবেশীদের সহায়তার স্কুলছাত্রীকে দ্রুত উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়।

নির্যাতনের শিকার স্কুলছাত্রী জানায়, দুই জন হাত-পা চেপে ধরে পালাক্রমে ধর্ষণ করে। এর মধ্যে একজন রিয়াজ খান অন্য দুইজন অপরিচিত। ধর্ষণের একপর্যায়ে তার বমি হয়। রক্তাক্ত হয়ে অজ্ঞান হয়ে পড়ে।

উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের কর্মকর্তা ডা. মাহামুদুর রহমান রিজভি জানান, নির্যাতনের শিকার কিশোরীর প্রচুর রক্তক্ষরণ হচ্ছে। শারীরিকভাবে সে গুরুতর অসুস্থ। তাকে উন্নত চিকিৎসা ও পরীক্ষার জন্য খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

অভয়নগর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) তাজুল ইসলাম জানান, নির্যাতনের শিকার স্কুলছাত্রীর সঙ্গে  কথা হয়েছে। ধর্ষকদের গ্রেপ্তার করার জন্য অভিযান চলছে।

মন্তব্যসমূহ (০)


লগইন করুন


Remember me Lost your password?

Don't have account. Register

Lost Password


মন্তব্য করতে নিবন্ধন করুন