পায়রা বিদ্যুৎ কেন্দ্রের কোটি টাকা ছিনতাই

বরগুনার আমতলীতে পায়রা তাপবিদ্যুৎ কেন্দ্রের কোটি টাকা ছিনতাইয়ের ঘটনা ঘটেছে।  বুধবার (৫ ফেব্রুয়ারি) সন্ধ্যায় আমতলী-কুয়াকাটা মহাসড়কের টিয়াখালী কলেজ সংলগ্ন এলাকায় ছিনতাইয়ের ঘটনা ঘটে। এসময় টাকাবহনকারী মাইক্রোবাসে থাকা কোম্পানির মালিকসহ দুইজন ছিনতাইকারীদের রামদার কোপে আহত হয়েছেন। 

 

ছিনতাইকারীদের হামলায় গুরুতর আহত ঝুনু ও তানভীরকে উদ্ধার করে বরিশাল শের-ই বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এ ঘটনার সাথে জড়িত সন্দেহে মাইক্রোবাসের চালক আবু বক্করসহ চারজনকে আটক করেছে পুলিশ।

 

আরইডব্লিউ, এসইডব্লিউ ও জেটি ট্রেডার্স নামের তিন ম্যানপাওয়ার কোম্পানি পায়রা তাপ বিদ্যুৎ কেন্দ্রের শ্রমিক সরবরাহ করে আসছে। ওই তিন কোম্পানির পাঁচ শতাধিক শ্রমিক পায়রা তাপ বিদ্যুৎ কেন্দ্রে কাজ করে। শ্রমিকদের জানুয়ারি মাসের বেতন দেয়ার জন্য বরিশাল প্রিমিয়ার ব্যাংক থেকে আরইডব্লিউ সাড়ে ১২ লাখ, এসইডব্লিউ ৩৬ লাখ ও জেপি ট্রেডার্স ৫২ লাখ টাকা উত্তোলন করে কলাপাড়া উপজেলার তাপ বিদ্যুৎ কেন্দ্রে মাইক্রোবাস (ঢাকা মেট্রো-চ-৫১-৫৭৬১) যোগে টাকা নিয়ে যাচ্ছিল। মাইক্রোবাসটি আমতলী-কুয়াকাটা মহাসড়কের টিয়াখালী কলেজ সংলগ্ন স্থানে আসামাত্র একটি ভ্যান গাড়ি ও বাঁশ ফেলে মাইক্রোবাসের গতিরোধ করে। পরে পিছন দিক থেকে ৫-৬টি মোটরসাইকেলে আসা ছিনতাইকারী চক্র ধারালো রামদা ও দেশীয় অস্ত্র দিয়ে মাইক্রোবাসের কাঁচ ভেঙে ভিতরে প্রবেশ করে এবং মাইক্রোবাসটি অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে টিয়াখালী কাঁচা সড়কে নিয়ে যায়। সেখানে নিয়ে গাড়িতে থাকা কোম্পানির হোসাইন, জুয়েল, হুমায়ূন, ঝুনু ও তানভীরকে বেধড়ক মারধর করে টাকার ব্যাগ ছিনিয়ে নেয়ার চেষ্টা করে। এ সময় তানভির ও ঝুনু প্রতিরোধ করলে তাদেরকে এলোপাথাড়ি কুপিয়ে টাকার ব্যাগ নিয়ে যায় মোটরসাইকেল করে পালিয়ে যায়।

 

আমতলী থানার ওসি (তদন্ত) মনোরঞ্জন মিস্ত্রি জানান, খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে গিয়ে মাইক্রোবাস চালক আবু বক্করসহ চারজনকে আটক ও মাইক্রোবাসটি উদ্ধার করা হয়েছে।

 

বরগুনার পুলিশ সুপার মারুফ হোসেন পিপিএম জানান, ছিনতাইকারীদের আটক এবং টাকা উদ্ধারের চেষ্টা চলছে।

মন্তব্যসমূহ (০)


লগইন করুন


Remember me Lost your password?

Don't have account. Register

Lost Password


মন্তব্য করতে নিবন্ধন করুন