নরসিংদীতে সরকারী কর্মকর্তার বিরুদ্ধে নারী নির্যাতন ও যৌতুক দাবির অভিযোগ

নরসিংদী প্রতিনিধি : নরসিংদীর শিবপুর উপজেলার জয়নগর ইউনিয়নে যৌতুকের দাবিতে নির্যাতনের বিচার ও নিজেকে বাঁচানোর দাবিতে এক অসাধু চরিত্রহীন সরকারী কর্মকর্তা ওবাইদুল্লাহ এর বিরুদ্ধে অভিযোগ করেছেন তার স্ত্রী শাহনাজ। 

লিখিত বক্তব্যে শাহনাজ বলেন, দীর্ঘ ১০ বৎসর সে আমার সাথে অবৈধ শারীরিক মেলামেশা করে। পরবর্তীতে সাংবাদিক ও প্রশাসনের চাপের মুখে পড়ে তার সাথে ৭ লক্ষ টাকা কাবিন মোতাবেক আমার বিবাহ হয়। কিন্তু বিয়ের পর থেকেই ওবাইদুল্লাহ আমাকে তার কাছ থেকে কৌশলে সরানোর জন্য আমার নিকট পাঁচ লক্ষ টাকা যৌতুক দাবী করে। নতুবা সে আমার অশ্লীল ছবি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম সহ আমার প্রথম স্বামীর ছেলে মেয়ের নিকট পাঠানোর হুমকি প্রদর্শন করে।

এদিকে ভুক্তভোগী শাহনাজ সংবাদিকদের নিকট আরো বলেন, সে হুমকি দিয়েই খ্যান্ত না, এই নরপশু আমার প্রথম স্বামীর বড় সন্তানের নিকট আমার অশ্লীল ছবি পাঠায়। তাছাড়াও ওবাইদুল্লাহ প্রতিনিয়ত শাহনাজকে মানসিক ও শারীরিক নির্যাতন করছে। তাছাড়াও শাহনাজকে এসব বিষয়ে নিয়ে মামলা করলে হত্যার হুমকি দিচ্ছে। 

এদিকে অভিযুক্ত ওবাইদুল্লাহ এর নিকট মোবাইল ফোনের মাধ্যমে অভিযোগের বিষয়ে জানতে চাইলে তিনি বলেন, আমি শাহনাজের নিকট পাঁচ লক্ষ টাকা যৌতুক চেয়েছি। আমি শাহনাজকে আমার সংসারে রাখতে চাই না।

একপর্যায়ে ওবায়দুল্লাহ উত্তেজিত হয়ে বলেন, আমি এ বিষয়ে আপনাদের মানে সাংবাদিকদের সাথে কোন কথা বলতে প্রস্তুত নই। এ বিষয়ে ওবাইদুল্লার পিতা আঃ বাছেদ মাষ্টারের নিকট জানতে চাইলে তিনি বলেন, আমার ছেলে একজন বদচরিত্রের মানুষ। বিগত সময়ে তার অনেক কুকীর্তির অভিযোগ আমার কাছে এসেছে। এটা নতুন কিছু নয়। তাই তার সঠিক বিচার হোক এটা আমিও চাই। 

এদিকে অপরাধ বিশেষজ্ঞরা মনে করেন, এসব অসাধু চরিত্রহীন সরকারী কর্মকর্তা একজনের জন্য সকলের সুনাম নষ্ট হচ্ছে। তাই এসব অসাধু কর্মকর্তাদের বিরুদ্ধে সঠিক তদন্ত করে যথাযথ ব্যবস্থা গ্রহন করা উচিত।

মন্তব্যসমূহ (০)


Lost Password


মন্তব্য করতে নিবন্ধন করুন