হোয়াটসঅ্যাপ সমালোচনার পরও নিজেদের সিদ্ধান্তে অনড়

নিজেদের সেবার শর্তে কিছু বিতর্কিত বিষয় যোগ করার কারণে বিশ্বজুড়ে সমালোচনার শিকার হয়েছে হোয়াটসঅ্যাপ। তারপরও জনপ্রিয় ও মেসেজিং সেবাটি নিজেদের সিদ্ধান্তে অনড় থাকছে। জানুয়ারি পরিবর্তনের প্রথম ঘোষণা দেওয়ার পরই লাখ লাখ ব্যবহারকারি হোয়াটসঅ্যাপ ছেড়ে গেছেন। কিন্তু সিদ্ধান্ত বদল করেনি তারা। এই পরিস্থিতিতে হোয়াটসঅ্যাপের প্রতিদ্বন্দ্বি বেশ কয়েকটি প্রতিষ্ঠান দারুণ লাভবান হয়েছে।

ফেসবুকের মালিকানাধীন প্রতিষ্ঠানটি দাবি করেছে, ভুল তথ্যের কারণে তাদের ব্যবসায় ব্যাপক ক্ষতি হয়েছে। তাদের দাবি, পরিবর্তন বিষয়ে গ্রাহকদের কাছে সঠিক তথ্য পৌঁছায়নি। হোয়াটসঅ্যাপ এখন বলছে, পরিবর্তনের বিষয়ে তারা গ্রাহকদের আরো ভালোভাবে বোঝাতে পারতো। সমালোচনার ফলে তারা এটি বুঝতে পেরেছে বলে দাবি করেছে প্রতিষ্ঠানটি।

তাদের নতুন পলিসি প্রথম প্রকাশের পর বিশ্বজুড়ে এই ধারণা ছড়িয়ে পড়েছিলো যে, হোয়াটসঅ্যাপ তাদের মূল প্রতিষ্ঠান ফেসবুকের সাথে গ্রাহকদের সমস্ত তথ্য শেয়ার করবে। কিন্তু হোয়াটসঅ্যাপ এখন বলছে, তাদের পলিসি অনুসারে খুব সামান্য পরিবর্তন আসবে। গ্রাহকরা যে ধরনের ভয় পেয়েছেন, নতুন পলিসিতে সে রকম কিছু নেই বলে দাবি করেছে তারা।

গ্রাহকদের সন্তোষজনক ব্যাখ্যা দেওয়ার জন্য আগামী সপ্তাহগুলোতে তারা গ্রাহকের অ্যাপে নতুন বার্তা পাঠাবে, বিবিসির এক সংবাদে এমন দাবি করা হয়েছে।

মন্তব্যসমূহ (০)


Lost Password


মন্তব্য করতে নিবন্ধন করুন