দেশজুড়েরাজশাহী

সৎ ও  ইমেজের প্রার্থী ইঞ্জিনিয়ার আমিনুল সরকার

আগামী মার্চে উপজেলা পরিষদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে নির্বাচন কমিশনের এমন ইঙ্গিতের পর থেকেই বেলকুচিতে নতুন করে নির্বাচনী হাওয়া বইতে শুরু করেছে। ঐতিহ্যবাহী তাঁতসমৃদ্ধ বেলকুচি উপজেলাটি ছয়টি ইউনিয়নও ও একটি পৌরসভা নিয়ে গঠিত। শিল্প সমৃদ্ধ সম্ভাবনায় বেলকুচি উপজেলা ঘুরে দেখা যায়, আগামী উপজেলা পরিষদ নির্বাচন দলীয় প্রতীকে অনুষ্ঠিত হবে যার কারনে দলীয় মনোনীত একক প্রার্থীতা দাবি করে একাধিক নেতাকর্মীর সমর্থকরা ব্যনার-ফেস্টুন ও বিভিন্ন সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে প্রচারনা চালাচ্ছেন। উপজেলায় জনগণের সাথে কথা বলে জানা যায়, একাধিক প্রার্থী প্রচারনা চালালেও জনগণের আলোচনায় আছে হাতে গোনা দু একজন। সেক্ষেত্রে সৎ ও  ইমেজের ব্যক্তি হিসেবে ইঞ্জিনিয়ার আমিনুল সরকারের নাম জনগণের আলোচনায় লক্ষ্য করা যাচ্ছে। বেলকুচি উপজেলা আওয়ামীলীগের কার্যকারী সদস্য ও ঢাকা টেক্সটাইল ইঞ্জিনিয়ারিং কলেজের সাবেক ভিপি আমিনুল সরকার সদ্য অনুষ্ঠিত একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে দলীয় সার্থে ব্যক্তিগতভাবে বিভিন্ন প্রচার-প্রচারণা করে দলীয় প্রার্থীকে বিপুল ভোটে বিজয়ী করার ক্ষেত্রে অগ্রণী ভূমিকা রেখেছেন বলে জানা যায়। আরো জানা যায়, বেকার যুবকদের যোগ্যতা অনুযায়ী কর্মসংস্থানের ব্যবস্থা ও অসহায় মানুষদের আর্থিক সাহায্য দিয়ে আসার কারণে সমাজসেবক হিসেবেও তার সুনাম মানুষের মুখে।
তৃণমূলের বেশ কয়েকজন নেতাকর্মীরা জানান, অনেক আগে অসহায় মানুষ ও নেতাকর্মীদের ব্যক্তিগতভাবে কর্মসংস্থানের ব্যবস্থা করে ও আর্থিকভাবে সহযোগিতার করে আসছেন। ক্লিন ইমেজের ব্যক্তি হওয়ায় ইঞ্জিনিয়ার আমিনুল দলীয় মনোনয়ণ পেয়ে বেলকুচি উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান নির্বাচিত হলে আধুনিক ও মাদকমুক্ত বেলকুচি গড়ে তোলার পথ সুগম হবে বলে তারা বিশ্বাস করেন

প্রিয় পাঠক আমাদের পেজে লাইক দিয়ে আমাদের সাথে থাকুন
প্রিয় পাঠক আপনার মতামত জানান

এ বিভাগের আরো খবর

Close
Close