চট্টগ্রামে গ্যাসসংকটে সার কারখানায় উৎপাদন বন্ধ

চট্টগ্রামে গ্যাসসংকটে সার কারখানায় উৎপাদন বন্ধ
Crickex Sign Up

দীর্ঘ আড়াই মাস বন্ধ থাকার পর গত ২০ ফেব্রুয়ারি মধ্যরাত থেকে সার উৎপাদন শুরু হয় চট্টগ্রাম ইউরিয়া সার কারখানা লিমিটেডে (সিইউএফএল)। তবে গত মঙ্গলবার রাত সাড়ে ৮টায় রাষ্ট্রায়ত্ত এ কারখানাটিতে আবারও ইউরিয়া উৎপাদন বন্ধ হয়ে যায়। কারখানার ব্যবস্থাপনা পরিচালক প্রকৌশলী মো. আক্তারুজ্জামান বলেন, গ্যাসের চাপ কমে যাওয়ার কারণে কারখানার উৎপাদন বন্ধ রাখা হয়েছে। সিইউএফএল সূত্র জানায়, কারখানার সার উৎপাদন বন্ধ থাকায় প্রতিদিন প্রায় পৌনে দুই কোটি টাকার বেশি লোকসান গুনতে হয়।

কারখানা কর্তৃপক্ষ যান্ত্রিক ত্রুটির কথা বললেও মূলত বাল্ক গুদামে সার রাখার জায়গা না থাকায় গত সপ্তাহে সাত দিন কারখানার উৎপাদন বন্ধ রাখা হয়। গত ৯ জুলাই বিকেল ৩টা থেকে ১৭ জুলাই পর্যন্ত যান্ত্রিক ত্রুটি দেখিয়ে উৎপাদন বন্ধ রাখে কর্তৃপক্ষ। সূত্র জানায়, সিইউএফএলের নিয়ন্ত্রক সংস্থা বিসিআইসি কর্তৃপক্ষ চিটাগং ইউরিয়া ফার্টিলাইজার লিমিটেডের বার্ষিক উৎপাদনক্ষমতা ২৪৭০০০ মেট্রিক টন নির্ধারণ করে।

কারখানাটি এর মধ্যে বেশ কয়েকবার উৎপাদন বন্ধ হয়ে গেলেও পরে উৎপাদন শুরু হয়। সর্বশেষ গত ৩ ডিসেম্বর বন্ধ হয়ে যাওয়ার পর গত ২০ ফেব্রুয়ারি ফের রাষ্ট্রায়ত্ত এ কারখানাটিতে ইউরিয়া উৎপাদন শুরু হয়েছিল। সিইউএফএল কর্তৃপক্ষ জানায়, কারখানাটি সচল থাকলে দৈনিক ১ হাজার ৭০০ মেট্রিক টন সার উৎপাদন করা সম্ভব হয়। সর্বশেষ উৎপাদন হয়েছে ১০০ থেকে ১২০০ মেট্রিক টন।

মন্তব্যসমূহ (০)