চরফ্যাশনে উপ-নির্বাচনকে কেন্দ্র করে হামলা,আহত-১০

চরফ্যাশনে উপ-নির্বাচনকে কেন্দ্র করে হামলা,আহত-১০

চরফ্যাশনে উপ-নির্বাচনকে ঘিরে হামলার ঘটনা ঘটেছে। উপজেলার মাদ্রাজ ইউনিয়নের হামিদপুর ৪নং ওয়ার্ডে আসন্ন উপ-নির্বাচনকে ঘিরে দুই ইউপি সদস্য প্রার্থীর সমর্থকদের মধ্যে হামলার ঘটনায় অন্তত ১০জন আহত হয়েছে বলে ভূক্তভোগী সূত্রে জানা গেছে। আহতরা হলেন, মো. শাখাওয়াত (৩০) শফিউদ্দিন (২০) জহিরুল (২৮) সাগর (২৬) জাকির (৩৫) ইকবাল (২৫) ও মতিন ঢালি (২৮)সহ আরো কয়েকজন। আহতদের উদ্ধার করে চরফ্যাশন উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে। গত (৭জুন) মঙ্গলবার সন্ধ্যায় হামিদপুর চৌমহনী এলাকায় এ হামলার ঘটনা ঘটে।

টিউবওয়েল প্রতিকের ইউপি সদস্য প্রার্থী আবদুল লতিফ তোতা বেপারী অভিযোগ করে বলেন, সন্ধ্যায় নির্বাচনী অফিসে কর্মী ও সমর্থকদের সঙ্গে চা খাওয়ার সময় ফুটবল প্রতিকের প্রতিপক্ষ ইউপি সদস্য প্রার্থী রাসেল দেওয়ানের নির্দেশে ও তার সমর্থক জয়নাল মিয়ার নেতৃত্বে ফিরোজ শেখ,রাকিব দেওয়ান,মনোয়ার দেওয়ান,নবু মুন্সিসহ অন্তত ৫০জন সন্ত্রাসী একত্রিত হয়ে দেশিও ধারালো অস্ত্র দা’ছেনি ও লাঠিসোঠাঁ নিয়ে আমাদের উপর অতর্কিত হামলা চালিয়ে আমার কর্মী সমর্থকদের কুপিয়ে ও পিটিয়ে গুরুতর জখম করেছে। এসময় কর্মী সমর্থকদের ১০টি মটর সাইকেল ভাংচুরসহ মোবাইল ফোন ও টাকা পয়সা ছিনিয়ে নেয় সন্ত্রাসীদল। হামলার অভিযোগ অস্বিকার করে প্রতিপক্ষ প্রার্থী রাসেল দেওয়ান বলেন, টিউবওয়েল প্রতিকের লোকজন আমাদের নেতাকর্মী সমর্থকদের পিটিয়ে আহত করেছে। চরফ্যাশন থানার অফিসার ইনচার্জ মনির হোসেন মিয়া বলেন, উভয়পক্ষের সঙ্গে কথা বলেছি। নির্বাচনী আইন মেনে চলার জন্য প্রার্থীদের বলা হয়েছে।

এ প্রসঙ্গে উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা রফিকুল ইসলাম বলেন, বিষয়টি আমি থানা সূত্রে অবগত হয়েছি। নির্বাচনী নিয়মবহির্ভূত কর্মকান্ড হলে বিধি মোতাবেক প্রার্থীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে। উল্লেখ্য, মাদ্রাজ ইউনিয়নের ৪নং ওয়ার্ডের নির্বাচিত ইউপি সদস্য লুৎফর দেওয়ানের মৃত্যু পরবর্তী ওই ওয়ার্ডটিতে আগামী ১৫জুন বুধবার উপ-নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। ওয়ার্ডটিতে ১৭শ জন নারীপুরুষ ভোটার রয়েছেন।

মন্তব্যসমূহ (০)