শিশুর কামড়ে সাপের মৃত্যু

শিশুর কামড়ে সাপের মৃত্যু

আজ মঙ্গলবার সকাল ১০টায় চুয়াডাঙ্গা সদর উপজেলার উজলপুর গ্রামের বিলপাড়ায় শিশুর কামড়ে একটি সাপের বাচ্চা মারা গেছে। সাপের কামড়ে শিশুর মৃত্যু নয় বরং শিশুর কামড়ে বিষধর গোখরা সাপের বাচ্চা মারা গেছে বলে দাবি করা হচ্ছে। পরে শিশুটিকে উদ্ধার করে চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। একবছর বয়সী শিশু জান্নাতুল ফেরদৌস একই গ্রামের রিয়াজুল ইসলামের মেয়ে।

বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন সদর হাসপাতালের শিশু বিশেষজ্ঞ মাহবুবুর রহমান মিলন। ঘটনার পর শিশুটিও অসুস্থ হয়ে পড়ে। তাকে চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালে চিকিৎসা দেওয়ার পর শিশুটি সুস্থ হয়েছে। শিশু জান্নাতুলের মা শিলা খাতুন জানান, আজ মঙ্গলবার সকালে চাচাতো ভাই কাওসারের সঙ্গে জান্নাতুল ঘরের মধ্যে খেলা করছিল। খেলতে খেলতে এক পর্যায়ে জান্নাতুল ও কাওসার ঘরের খাটের নিচে চলে যায়। সেখানে ছিল বিষধর গোখরা সাপের একটি বাচ্চা।

জান্নাতুল সাপের বাচ্চাটি ধরে মুখে নিয়ে কামড়ে ধরে। এতে সাপের বাচ্চাটি মারা যায়। পরে সাপের বাচ্চাসহ খাটের নিচ থেকে বাইরে বের হয়ে আসে শিশু জান্নাতুল। জান্নাতুলও অসুস্থ হয়ে পড়ে। তাকে দ্রুত উদ্ধার করে সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। সাপের বাচ্চাটি মারা গেছে। সেটি চিকিৎসকের কাছে দেওয়া হয়েছে। চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালের শিশু বিশেষজ্ঞ ডা. মাহবুবুর রহমান মিলন বলেন, আমরা ওই শিশুটিকে হাসপাতালে তিন-চার ঘণ্টা পর্যবেক্ষণে রেখেছিলাম। শিশুটি ভালো আছে। তাকে হাসপাতাল থেকে ছেড়ে দেওয়া হয়েছে।

মন্তব্যসমূহ (০)