মাদক, জুয়ার বিরুদ্ধে মানব বন্ধন করায় প্রজন্মলীগের নেতাকে হাতুড়িপেটা

ফরিদপুর প্রতিনিধিঃ ফরিদপুরের বোয়ালমারীতে মাদক, জুয়ার বিরুদ্ধে নেতৃত্ব দেয়ায় ক্ষমতাসীন দলের এক নেতাকে পিটিয়ে মারাত্মক আহত করার অভিযোগ পাওয়া গেছে। বুধবার (৭ এপ্রিল) বিকেল ৪টায় উপজেলার সাতৈর ইউনিয়নের কয়ড়া  নামক স্থানে এই ঘটনা ঘটে। আহত আলিফ বাংলাদেশ মুক্তিযুদ্ধ প্রজন্মলীগের ফরিদপুর জেলা শাখার সাধারণ সম্পাদক।

আহত আবু সুফিয়ান বোয়ালমারী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসাধীন অবস্থায় জানান, উপজেলার সাতৈর ইউনিয়নের ডোবরা গ্রামে অবস্থিত জনতা জুট মিলস লিমিটেডের সামনে মাদক ও জুয়ার বিরুদ্ধে গত ২ এপ্রিল এক মানব বন্ধন ও বিক্ষোভ মিছিল অনুষ্ঠিত হয়। ওই মানববন্ধন ও বিক্ষোভ মিছিলে আমি নেতৃত্ব দেই। ওই মানববন্ধন ও বিক্ষোভ মিছিলে নেতৃত্ব দেয়ায় স্থানীয় মাদক ব্যবসায়ী, মাদকসেবী ও জুয়াড়িরা  আমার উপর ক্ষুব্ধ ছিল।

বুধবার বিকেল ৪টার দিকে আমি মোটরসাইকেলযোগে সাতৈর ইউনিয়নের জয়নগর থেকে মোহনপুর যাচ্ছিলাম। এ সময় ওই ইউনিয়নের কয়ড়া গ্রামের মোহনের বাড়ির কাছে পৌঁছলে সাতৈর ইউনিয়নের কয়ড়া গ্রামের আবুল, মানু, মুশা এবং ডোবরা গ্রামের আমীর সরদার, মুরাদ মুন্সী আমাকে লাঠি দিয়ে আঘাত করে মোটরসাইকেল থেকে ফেলে দেয়। এরপর পার্শ্ববর্তী জনৈক রবিনের বাড়ির পেছনের বাগানে নিয়ে হাতুড়ি ও রড দিয়ে আমাকে পিটিয়ে মারাত্মক আহত করে। পরে স্থানীয়রা উদ্ধার করে বোয়ালমারী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের জরুরী বিভাগে নিয়ে আসে।'

এ ব্যাপারে জরুরি বিভাগে কর্তব্যরত চিকিৎসক ডা. কে এম মাহমুদূর রহমান বলেন, এক্স-রে রিপোর্ট দেখে মনে হচ্ছে আলিফের বাম হাত ও বাম পা ভেঙে গেছে। তাকে ফরিদপুরের বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে। উল্লেখ্য, উপজেলার সাতৈর ইউনিয়নের ডোবরা এলাকায় সম্প্রতি তাস, জুয়া, নেশা, চুরি বেড়ে যাওয়ায় এর প্রতিবাদে এবং জুয়া উৎখাতের জন্য প্রশাসনের দৃষ্টি আকর্ষণ করে ওই মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়।

মন্তব্যসমূহ (০)


Lost Password


মন্তব্য করতে নিবন্ধন করুন