আন্তর্জাতিক

থাইল্যান্ডে মুসলিমপ্রধান এলাকায় হামলা, নিহত ১৫

আন্তর্জাতিক ডেস্ক- থাইল্যান্ডের দক্ষিণাঞ্চলের মুসলিমপ্রধান ইয়ালা প্রদেশে বন্দুকধারীদের গুলিবর্ষণে অন্তত ১৫ স্বেচ্ছাসেবী নিহত হয়েছে। চার গ্রামবাসী আহত। গতকাল মঙ্গলবার মধ্যরাতে প্রদেশের একটি নিরাপত্তা চৌকিতে এ ঘটনা ঘটে। সন্দেহভাজন বিচ্ছিন্নতাবাদীরা এই হামলা চালিয়েছে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

প্রিয় পাঠক আমাদের পেজে লাইক দিয়ে আমাদের সাথে থাকুন

বার্তা সংস্থা রয়টার্সের প্রতিবেদনে বলা হয়, উদ্ধারকর্মীরা ঘটনাস্থলে যাতে দ্রুত পৌঁছাতে না পারে, এ জন্য রাস্তায় পেরেক বিছিয়ে রাখে হামলাকারীরা। একই সঙ্গে বিস্ফোরকদ্রব্য ব্যবহার করা হয়। এ পর্যন্ত এই হামলার দায় কেউ স্বীকার করেনি।

থাই কর্তৃপক্ষ এই ঘটনাকে সাম্প্রতিক সময়ের সবচেয়ে বড় বন্দুক হামলা বলে উল্লেখ করেছে। দেশটির আঞ্চলিক নিরাপত্তা কর্মকর্তা কর্নেল প্রামোতে প্রম-ইন রয়টার্সকে বলেন, ‘সাম্প্রতিক সময়ে থাইল্যান্ডে এটি সবচেয়ে বড় হামলা। এটি বিচ্ছিন্নতাবাদীদের হামলা বলে মনে হচ্ছে। ’

দক্ষিণাঞ্চলের সেনা মুখপাত্র প্রামোট প্রোম জানিয়েছেন, সন্দেহভাজন বিদ্রোহীরা ওই হামলা চালিয়েছে। এছাড়া তিনি জানান, হামলায় সেনা ঘটনাস্থলেই ১২ জনের মৃত্যু হয়। পরবর্তীতে হাসপাতালে আরও ৩ জনের মৃত্যু হয়েছে।

বৌদ্ধপ্রধান থাইল্যান্ডের দক্ষিণাঞ্চলীয় মালয়-মুসলিমপ্রধান প্রদেশ- ইয়ালা, পাত্তানি ও নারাথিওয়াতে এক দশক ধরে বিচ্ছিন্নতাবাদী বিদ্রোহ চলছে।

এখানে চলা সহিংসতা পর্যবেক্ষণকারী গোষ্ঠী ‘ডিপ সাউথ ওয়াচ’-এর তথ্যানুযায়ী, এই প্রদেশ তিনটিতে ২০০৪ সাল থেকে শুরু হওয়া সহিংসতায় এ পর্যন্ত প্রায় সাত হাজার লোক নিহত হয়েছেন। বিদ্রোহীদের ভাষ্য, তারা ওই অঞ্চলকে স্বাধীন করতে লড়াই করছে।

প্রিয় পাঠক আপনার মতামত জানান

এ বিভাগের আরো খবর

Close
Close