ঢাকা

গাজীপুরে প্রতিবন্ধী শিশুকে ধর্ষণের দায়ে দুজনের যাবজ্জীবন

গাজীপুরে প্রতিবন্ধী শিশুকে ধর্ষণের দায়ে দুজনের যাবজ্জীবন। তিন বছর ১৫ দিন আগে গাজীপুরের শ্রীপুরে ১২ বছরের বাক-প্রতিবন্ধী শিশুকে ধর্ষণের দায়ে এ রায় দেয় আদালত।

প্রিয় পাঠক আমাদের পেজে লাইক দিয়ে আমাদের সাথে থাকুন

দণ্ডপ্রাপ্তরা হলো- গাজীপুরের শ্রীপুর উপজেলার মৃত নূরুল ইসলামের ছেলে ফারুক (৩৩) ও রাজেন্দ্রপুর পূর্বের টেক এলাকার মৃত সাহেদ আলীর ছেলে বাদশা মিয়া (৩২)।

রোববার (১৩ অক্টোবর) দুপুরে গাজীপুরের নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালের বিচারক এম,এল,বি মেছবাহ উদ্দিন আহমেদ আসামিদের উপস্থিতিতে এই সাজা দেন।

রায়ে দুজনকেই এক লাখ টাকা করে জরিমানা করেছে আদালত। ধার্য করা দুই লাখ টাকা না দিলে তাদের অতিরিক্ত ছয়মাস করে দণ্ড ভোগ করতে হবে।’

নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালের বিশেষ প্রসিকিউটর এ.বি.এম আফফান জানিয়েছেন, ‘২০১৬ সালের ২৮ সেপ্টেম্বর রাতে শ্রীপুরের মাওনা উত্তরপাড়া এলাকার রূপালী ফার্মের কাছে দণ্ডপ্রাপ্ত দুজন বাদেও অচেনা দুই ব্যক্তি ওড়না দিয়ে দুই হাত বেঁধে বাক-প্রতিবন্ধী ওই শিশুকে ধর্ষণ করে।’

এরপর হাতের বাঁধন নিয়েই কাঁদতে কাঁদতে ওই ফার্মের তত্ত্বাবধায়ক মো. নাফিউলের বাড়িতে যায় শিশুটি। কান্নার শব্দে নাফিউলের স্ত্রী ঘরের দরজা খুলে শিশুটির এই হাল দেখতে পায়।

শিশুটির হাতের বাঁধন খুলে ওই নারী ঘটনা জানতে চাইলে আড়ালে দাঁড়িয়ে থাকা ধর্ষকদের দেখিয়ে দেয় সে। তখন স্থানীয়রা মিলে ফারুক ও বাদশা মিয়াকে পুলিশে সোপর্দ করতে পারলেও অচেনা দুজন পালিয়ে যায়।

পরে গ্রেপ্তার দুজন আদালতে ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিলেও অন্য ধর্ষণকারীদের সনাক্ত করতে ব্যর্থ হয়েছে পুলিশ।

প্রিয় পাঠক আপনার মতামত জানান

এ বিভাগের আরো খবর

Close
Close