সুমন বললেন, ‘নিঃশ্বাস আল্লাহ দিসে’

বুড়িগঙ্গায় লঞ্চডুবির ১৩ ঘণ্টা পর উদ্ধার করা হয়েছে সুমন ব্যাপারীকে। এ নিয়ে কৌতুহলের শেষ নেই। যেখানে মানুষের পক্ষে এক থেকে দেড় মিনিটের বেশি পানির নিচে থাকা সম্ভব নয়, সেখানে সুমন ছিলেন ১৩ ঘন্টা। কীভাবে এটা সম্ভব হয়েছে, তা নিয়ে বিভিন্ন ব্যাখ্যা দেওয়ার চেষ্টা করছেন অনেকে। তবে আজ দুপুরে গণমাধ্যমের সঙ্গে আলাপকালে সুমন ব্যাপারী বলেন, পানির নিচে নিঃশ্বাস আল্লাহ দিসে, আমি কিছু জানি না।

গতকাল রাতে সুমন ব্যাপারীকে উদ্ধার করে রাজধানীর স্যার সলিমুল্লাহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। চিকিৎসকরা জানিয়েছেন, তার শরীরে তেমন কোনো সমস্যা নেই। সাধারণ কিছু পরীক্ষা-নিরীক্ষা করেই হয়তো তাকে ছেড়ে দেওয়া হবে।

ডুবন্ত থাকা ১৩ ঘণ্টার বর্ণনা দিতে গিয়ে সুমন ব্যাপারী বলেন, লঞ্চের মধ্যে আমি ঘুমিয়ে ছিলাম। ধাক্কা খাওয়ার সঙ্গে সঙ্গে জেগে উঠি, কিন্তু মুহূর্তেই ডুবে যাওয়ার কারণে বের হতে পারিনি। তারপর কীসের মধ্যে ছিলাম, কীভাবে ছিলাম তা বলতে পারবো না। তবে একটা রড ধরে দাঁড়িয়ে ছিলাম, এটুকু মনে আছে।

তিনি আরো বলেন, আমার কাছে মনে হয়েছে ১০ মিনিট ভেতরে ছিলাম। পরে জানলাম সময়টা ১৩ ঘণ্টা। কীভাবে এই সময় পার করেছি তা আল্লাহই ভালো জানে। বের হওয়ার সময়ও কিচ্ছু বুঝি নাই, আল্লাহই তার কুদরতে আমাকে বের করে এনেছেন। তার কাছে কোটি কোটি শুকরিয়া।

কীভাবে নিঃশ্বাস নিয়েছেন- এমন প্রশ্নে সুমন ব্যাপারী বলেন, নিঃশ্বাস আল্লাহ দিসে। আমি কিছু বলতে পারবো না। এর ব্যাখ্যা আমার পক্ষে করা সম্ভব নয়। পুরো ঘটনাটাই আমার কাছে অলৌকিক মনে হচ্ছে।

মন্তব্যসমূহ (০)


লগইন করুন


Remember me Lost your password?

Don't have account. Register

Lost Password


মন্তব্য করতে নিবন্ধন করুন