অপরাধ

৪ স্ত্রী থাকা সত্ত্বেও নিজের পুত্রবধূকে ধর্ষণ করলো শ্বশুর !

দেশের নানা প্রান্ত থেকে এমন এমন খবর সামনে আসে যা খুবই লজ্জাজনক। বিশেষ করে ভারতের মতো দেশে যেখানে নারীকে নারায়ণীর সাথে তুলনা করা হয়, সেখানে নারীদের উপর যে অত্যাচারের ঘটনা দিন প্ৰতিদিন শোনা যাচ্ছে তা নিন্দনীয়। উত্তরপ্রদেশের আজমগড় থেকে এক অবাক করা মামলা সামনে এসেছে। এক পুত্রবধূ নিজের শশুরের উপর ধর্ষণ করার অভিযোগ তুলেছে। পুত্রবধূ দাবি অনুযায়ী তার শশুরের আগেই ৪ টি স্ত্রী আছে, কিন্তু তা সত্ত্বেও তার শশুরের যৌনতার খিদে মেটেনি এবং একদিন নিজের পুত্রবধূকে পিঠে সাবান লাগানোর অজুহাতে ডেকে তার ধর্ষণ করেন।

প্রিয় পাঠক আমাদের পেজে লাইক দিয়ে আমাদের সাথে থাকুন

কোনো মতে পীড়িত পুত্রবধূ চেঁচিয়ে আওয়াজ করে এবং চেঁচানোর আওয়াজ শুনে যখন পরিবারের লোকেরা সেখানে এসে পৌঁছায় তখন শশুর সব দোষ পুত্রবধূর ঘাড়ে চাপিয়ে দেয় এবং তারপর পরিবারের লোকেরা উল্টে পুত্রবধূকেই ঘরে আটকে দেয়। পীড়িত পুত্রবধূ অনেক ঘন্টা পর নিজের পরিজনদের এই পুরো ঘটনার খবর দেয় ও ১০০ নাম্বারে ফোন করে পুলিশ ডাকে। শশুর বাড়ির লোকজনের অত্যাচারের কথা ওই মহিলা পুলিশের কাছে খোলাখুলি ভাবে জানাই।

খবর অনুযায়ী বদনামির ভয় পেয়ে পরিবারের লোকেরা এই ঘটনাটিকে চাপা দেওয়ার পুরো চেষ্টা করে, কিন্তু পীড়িত পুত্রবধূ কারুর কথা শোনেন না এবং ন্যায়ের জন্য পুলিশের কাছে গিয়ে পৌঁছায়। মুবারাকপুর থানার অঞ্চলে থাকা পীড়িত পুত্রবধূর অভিযোগে পুলিশ মামলাটিকে দূষকর্মী অভিযোগে শশুরের বিরুদ্ধে FIR দায়ের করেছে। বলেছেন মহিলা নিজের শশুরের হাত থেকে রক্ষার করার দাবি তুলেছে।

প্রিয় পাঠক আপনার মতামত জানান

এ বিভাগের আরো খবর

Close