স্বাধীনতাবিরোধীর সন্তানদের চাকরিতে অযোগ্য ঘোষণার দাবি

জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে মানববন্ধনে মুক্তিযোদ্ধার সন্তানরা। ছবি: শাকিল/বাংলানিউজ

ঢাকা: একাত্তরে মহান মুক্তিযুদ্ধের সময় স্বাধীনতাবিরোধীদের সন্তানকে সরকারি চাকরিতে অযোগ্য ঘোষণার দাবি জানিয়েছে আমরা মুক্তিযোদ্ধার সন্তান।

শনিবার (২১ এপ্রিল) জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে আয়োজিত এক সমাবেশে এ দাবি জানানো হয়।

সমাবেশে সংগঠনের সভাপতি সাজ্জাদ হোসেন বলেন, বাংলাদেশের নিরাপত্তার স্বার্থে স্বাধীনতাবিরোধীর সন্তানদের সব ধরনের চাকরিতে অযোগ্য ঘোষণা করতে হবে। জামাত-শিবির কোটা সংস্কারের আন্দোলনকে ঘিরে দেশে নৈরাজ্য সৃষ্টি করছে। তাই দ্রুত বাংলাদেশে জামায়াত-শিবিরের রাজনীতি নিষিদ্ধ ঘোষণা করতে হবে।

এ সময় কোটা সংস্কারের আন্দোলন চলাকালে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্যের বাসভবনে হামলায় জড়িতদের বিচারেরও দাবি জানান তিনি।

সরকারি চাকরিতে ৩০ শতাংশ মুক্তিযোদ্ধা কোটা বাধ্যতামূলক করার দাবি জানিয়ে সাজ্জাদ বলেন, এ কোটা বাস্তবায়নে একটি কমিশন গঠন করতে হবে। যা বাস্তবায়ন করতে হবে বিসিএসের প্রিলিমিনারি থেকেই।

আয়োজক সংগঠনটির সাধারণ সম্পাদক রাশেদুজ্জামান শাহীন বলেন, এখন থেকে রাজাকারের ছেলে-মেয়েরা যেখানে দাঁড়াবে, তাদের প্রতিহত করা হবে। আর সহ্য করা হবে না।

‘জামায়াত-শিবিরগোষ্ঠী সাধারণ শিক্ষার্থীদের মুক্তিযোদ্ধাদের মুখোমুখি দাঁড় করাতে চায়। এ বিষয়ে সবাইকে সজাগ থাকতে হবে।’

সমাবেশে অন্যদের মধ্যে সংগঠনের যুগ্ম-সম্পাদক আল আমিন ও দফতর সম্পাদক আহমাদ রাসেল প্রমুখ বক্তব্য দেন।

Loading...