স্ত্রীকে অবিশ্বাস, বাড়িতে সিসি ক্যামেরা!

আরব আমিরাতে এক ব্যক্তির সন্দেহ, তাঁর স্ত্রীর অন্য পুরুষের সঙ্গে সম্পর্ক আছে। আর এ জন্য তিনি পুরো বাড়িতে ক্লোজ সার্কিট ক্যামেরা (সিসি) বসিয়েছেন। এদিকে তাঁকে নিয়ে ‘অপমানজনক’ মন্তব্য করায় ওই নারী পারিবারিক আদালতে বিবাহবিচ্ছেদের মামলা করেছেন। আমিরাতের আল আইন এলাকায় ঘটেছে এমন ঘটনা।

কাজের জন্য ওই ব্যক্তি মাসের পর মাস বাড়ির বাইরে থাকেন। কিন্তু যেহেতু সন্দেহ করছেন যে অন্য পুরুষদের সঙ্গে তার স্ত্রীর সম্পর্ক আছে, তাই তিনি বাড়িতে গোপন ক্যামেরা বসিয়েছেন। এ নিয়ে একদিন হঠাৎ স্ত্রীকে পেটান তিনি। পেটাতে পেটাতে একপর্যায়ে তিন সন্তানসহ স্ত্রীকে বাড়ি থেকে বের করে দেন। বিতাড়িত স্ত্রী দেশটির পারিবারিক আদালতে বিবাহবিচ্ছেদের মামলা করেছেন।

আদালতকে ৩৩ বছর বয়সী ওই নারী জানান, অন্য পুরুষদের সঙ্গে পরকীয়ার অভিযোগ এনে তাঁকে কাজের লোক এবং সন্তানদের সামনে পেটান তাঁর স্বামী। পেটানোর পর বাড়ি থেকে বের করে দেন তাঁর স্বামী। একটি প্রতিষ্ঠানে বেশ ভালো পদে চাকরি করা ওই নারী জানান, বাড়িটি নির্মাণে তিনিও আর্থিকভাবে সহযোগিতা করেছেন।

ওই নারী আদালতে বলেন, তিন সন্তানকে তিনি একাই লালনপালন করছেন। তাঁর স্বামী প্রায়ই বাড়ির বাইরে থাকেন। কাজের জন্য বাইরে থাকায় কখনো কখনো টানা কয়েক মাস তিনি (স্বামী) বাড়িতে আসেন না। কিন্তু স্বামী যখন তাঁকে অবিশ্বাস করা শুরু করলেন, তখন তিনি বিস্মিত হয়েছেন। এমনকি তিনি যখন বন্ধুদের সঙ্গে শপিং করতে কিংবা অন্য কোথাও যেতেন, তখনো গোয়েন্দাগিরি চালিয়েছেন স্বামী।

উভয় পক্ষের কথা শোনার পরই আদালত বিবাহবিচ্ছেদের অনুমতি দিয়েছেন। এতে সন্তানদের দায়িত্ব তাঁদের মায়ের ওপর অর্পণ করা হয়েছে। এ ছাড়া আদালত নির্দেশ দিয়েছেন যে বাড়ি থেকে তাঁদের বের করে দেওয়া হয়েছিল, সেই বাড়িতেই তাঁরা বসবাস করবেন। একই সঙ্গে তিন সন্তানের ভরণপোষণ, স্কুলের বেতন-ভাতাও দেবেন তাদের বাবা। তথ্যসূত্র: খালিজটাইমস ডটকম।

Facebook Comments

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ



সর্বশেষ আপডেট



» মিয়ানমারের সরকার রোহিঙ্গাদের ৪৫,০০০ একর জমির মালিকানা নিয়ে নিচ্ছে

» বাংলাদেশ ব্যাংকে আগুন !

» ফল প্রকাশ করা হল জবি ‘ডি’ ইউনিটের

» পরীর জন্মদিনে অতিথিদের জন্য ড্রেসকোড

» জেনে নিন কোন দেশের কতটি পরমাণু অস্ত্র রয়েছে

» শুটিংয়ে ফেরার সিদ্ধান্ত সারিকার

» ১ জিবি ইন্টারনেট পাওয়া যাবে ৮ টাকায় : তারানা হালিম

» আজীবন বার্সায় থাকছেন মেসি

» বাড়াবাড়ি করে নয়, কূটনৈতিকভাবে রোহিঙ্গা সংকট সমাধান

» সংগ্রামী নারী জাহানারার জীবন গল্প

» চুলের যত্নে পেঁয়াজের ব্যবহার!

» শুভ জন্মদিন- আসিফ হাসান কাজল

» ঝিনাইদহ-চুয়াডাঙ্গা মহাসড়ক অবরোধ, সড়ক সংস্কারের দাবী

» যে কিশোর চোখ বেঁধে সব কাজ করতে পারে

» মুক্তি পেয়েছে ‘দুলাভাই জিন্দাবাদ’

Design & Devaloped BY MyhostIT

,

স্ত্রীকে অবিশ্বাস, বাড়িতে সিসি ক্যামেরা!

আরব আমিরাতে এক ব্যক্তির সন্দেহ, তাঁর স্ত্রীর অন্য পুরুষের সঙ্গে সম্পর্ক আছে। আর এ জন্য তিনি পুরো বাড়িতে ক্লোজ সার্কিট ক্যামেরা (সিসি) বসিয়েছেন। এদিকে তাঁকে নিয়ে ‘অপমানজনক’ মন্তব্য করায় ওই নারী পারিবারিক আদালতে বিবাহবিচ্ছেদের মামলা করেছেন। আমিরাতের আল আইন এলাকায় ঘটেছে এমন ঘটনা।

কাজের জন্য ওই ব্যক্তি মাসের পর মাস বাড়ির বাইরে থাকেন। কিন্তু যেহেতু সন্দেহ করছেন যে অন্য পুরুষদের সঙ্গে তার স্ত্রীর সম্পর্ক আছে, তাই তিনি বাড়িতে গোপন ক্যামেরা বসিয়েছেন। এ নিয়ে একদিন হঠাৎ স্ত্রীকে পেটান তিনি। পেটাতে পেটাতে একপর্যায়ে তিন সন্তানসহ স্ত্রীকে বাড়ি থেকে বের করে দেন। বিতাড়িত স্ত্রী দেশটির পারিবারিক আদালতে বিবাহবিচ্ছেদের মামলা করেছেন।

আদালতকে ৩৩ বছর বয়সী ওই নারী জানান, অন্য পুরুষদের সঙ্গে পরকীয়ার অভিযোগ এনে তাঁকে কাজের লোক এবং সন্তানদের সামনে পেটান তাঁর স্বামী। পেটানোর পর বাড়ি থেকে বের করে দেন তাঁর স্বামী। একটি প্রতিষ্ঠানে বেশ ভালো পদে চাকরি করা ওই নারী জানান, বাড়িটি নির্মাণে তিনিও আর্থিকভাবে সহযোগিতা করেছেন।

ওই নারী আদালতে বলেন, তিন সন্তানকে তিনি একাই লালনপালন করছেন। তাঁর স্বামী প্রায়ই বাড়ির বাইরে থাকেন। কাজের জন্য বাইরে থাকায় কখনো কখনো টানা কয়েক মাস তিনি (স্বামী) বাড়িতে আসেন না। কিন্তু স্বামী যখন তাঁকে অবিশ্বাস করা শুরু করলেন, তখন তিনি বিস্মিত হয়েছেন। এমনকি তিনি যখন বন্ধুদের সঙ্গে শপিং করতে কিংবা অন্য কোথাও যেতেন, তখনো গোয়েন্দাগিরি চালিয়েছেন স্বামী।

উভয় পক্ষের কথা শোনার পরই আদালত বিবাহবিচ্ছেদের অনুমতি দিয়েছেন। এতে সন্তানদের দায়িত্ব তাঁদের মায়ের ওপর অর্পণ করা হয়েছে। এ ছাড়া আদালত নির্দেশ দিয়েছেন যে বাড়ি থেকে তাঁদের বের করে দেওয়া হয়েছিল, সেই বাড়িতেই তাঁরা বসবাস করবেন। একই সঙ্গে তিন সন্তানের ভরণপোষণ, স্কুলের বেতন-ভাতাও দেবেন তাদের বাবা। তথ্যসূত্র: খালিজটাইমস ডটকম।

Facebook Comments

সর্বশেষ আপডেট



এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ



© সর্বস্বত্ব সংরক্ষিতঃ ২০১৭ । বিডি টাইপ পত্রিকা আগামী প্রজন্মের মিডিয়া

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি