সোশাল মিডিয়ায় ছবি পোস্ট করে বিপাকে টুইঙ্কল

ভোগ’ ম্যাগাজিনের ফটোশুটের জন্য ছড়ানো কিছু বইয়ের ওপরে বসে ছবি তুলেছেন বলিউডের একসময়ের তারকা ও এখন লেখিকা টুইঙ্কল খান্না। ছবি দেখে মনে হবে, বইয়ের ওপর তিনি পা রেখেছেন।

ছবিটি সম্প্রতি ইনস্টাগ্রাম প্রোফাইলে পোস্ট করেন তিনি। আর তাতেই ঘটেছে বিপদ। সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে দারুণ সমালোচিত হন তিনি।

জানা গেছে, হিন্দুধর্মে বইকে দেবী সরস্বতীর সঙ্গে তুলনা করা হয়। বই হলো জ্ঞানের উৎস। জ্ঞান আর বিদ্যার দেবী সরস্বতী। সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে সমালোচনা করে অনেকেই লিখেছেন, বইয়ের ওপরে পা? একজন লেখিকাই যদি বইকে সম্মান না দেন, তাহলে আর কে দেবে!

মুম্বাইয়ে ‘মিসেস ফানিবোনস’ বইয়ের প্রকাশনা অনুষ্ঠানে টুইঙ্কল খান্না বলিউডের এ সময়ের অন্যতম জনপ্রিয় তারকা অক্ষয় কুমারের স্ত্রী টুইঙ্কল খান্না। নিজেকে বইয়ের পোকা অভিহিত করেছেন।

সমালোচনার জবাবে তিনি লিখেছেন, ‘আমার পা একটি টুলের ওপরে, মোটেও বইয়ের ওপরে নয়। কারণ, আমি চাইনি বইয়ের মলাটে ধুলা লাগুক।

আমি বিশ্বাস করি, বইয়ের ওপরে বসতে, বইয়ের পাশে ঘুমাতে কোনো সমস্যা নেই এমনকি নিয়মিত বই পড়ার জন্য কিছু বই আমার শৌচালয়ে রেখে দিয়েছি। টুইঙ্কল খান্নার লেখা বই ‘মিসেস ফানিবোনস’ প্রকাশিত হয় ২০১৫ সালের আগস্ট মাসে। বইটি অনেকেই পড়েছেন।

Loading...