ফিলিস্তিনি কিশোরীর সাহসিকতার পুরস্কার দিলো রিয়াল মাদ্রিদ

Google+ Pinterest LinkedIn Tumblr +

তামিমি আহেদ নামের ১৭ বছর বয়সী এই ফিলিস্তিনি কিশোরীকে পুরস্কৃত করল স্প্যানিশ ফুটবল ক্লাব রিয়াল মাদ্রিদ।
সংবাদ মাধ্যম আল জাজিরার তথ্য অনুযায়ী, ২০১৭ সালের ডিসেম্বরে পশ্চিম তীরের নবী সালেহ গ্রামে ইসরায়েলি সৈন্যরা আক্রমণ চালালে তামিমি নিজেকে আর শান্ত রাখতে পারেননি। তামিমি প্রতিবাদ করেন সেনাদের চলে যেতে।
ইসরায়েলি সৈন্যরা তামিমির প্রতিবাদ দেখে তাকে সরে যেতে বলে। এতেই ক্ষিপ্ত হয়ে তামিমি এক ইসরায়েলি সৈন্যের মুখে চড় বসিয়ে দেয়।
এরপর ওই কিশোরীকে গ্রেপ্তার করে নিয়ে যায় ইসরায়েলি সৈন্যরা। পরে তার মা তার সাথে দেখা করতে গেলে তামিমির মা নারিমান আল তামিমিকেও গ্রেপ্তার করে। দুজনকেই বন্দি থাকতে হয় আটমাস।
ঐ সময়ে তামিমির চড় মারার দৃশ্যের ভিডিও ভাইরাল হয় সামাজিক গণমাধ্যমে। এতে ফিলিস্তিনের হাজারো যুবক-যুবতী নিজেদের জায়গা থেকে প্রতিবাদী হয়ে উঠে।
তামিমি ইসরেয়েলি কারাগার থেকে ছাড়া পাওয়ার পর তাকে সম্মানিত করার জন্য আমন্ত্রণ জানায় স্প্যানিশ ফুটবল ক্লাব রিয়াল মাদ্রিদ।
এরপর তামিমি ও তার বাবা বাসিম তামিমি শনিবার স্পেনের সান্তিয়াগো বার্নাবু স্টেডিয়ামে হাজির হন। সেখানে ক্লাবটির সাবেক স্ট্রাইকার ও রিয়াল মাদ্রিদের বর্তমান পরিচালক এমিলিও বুতারাগুইনো তাঁকে স্বাগত জানান।
এমিলিও বুতারাগুইনো তামিমিকে একটি ব্যক্তিগত জার্সি উপহার দেন।
যদিও এতে নারাজ হয়েছেন ইসরায়েলের পররাষ্ট্রমন্ত্রী ইমানুয়েল নেসন। ইমানুয়েল নেসন টুট করে বলেছেন ‘এটি বিব্রতকর’।

ফেসবুক মন্তব্য
Share.