চট্টগ্রামে গুলিবিদ্ধ রোহিঙ্গার মৃত্যু

চট্টগ্রাম মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে গুলিবিদ্ধ অবস্থায় চিকিৎসা নিতে আসা মিয়ানমারের এক রোহিঙ্গা নাগারিক মারা গেছেন।
শনিবার সকাল সোয়া ৮টায় হাসপাতালের ২৪ নম্বর ওয়ার্ডে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়। নিহতের নাম মো. মুসা (২২)।

চট্টগ্রাম মেডিক্যাল পুলিশ ফাঁড়ির উপ-পরিদর্শক জহিরুল হক ভূঁইয়া আরটিভি অনলাইনকে জানান, মিয়ানমারের সরকারি বাহিনীর গুলিতে আহত হয়ে মো. মুসা উখিয়া সীমান্ত দিয়ে বাংলাদেশে প্রবেশ করে।পরে তার স্বজনরা চিকিৎসার জন্য তাকে চট্টগ্রাম মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে আসে। সেখানেই চিকিৎসাধীন অবস্থায় শনিবার সকালে তার মৃত্যু হয়।

বৃহস্পতিবার দিবাগত রাত ও শুক্রবার ভোরে মিয়ানমারের উত্তর-পশ্চিমাঞ্চলীয় রাখাইন রাজ্যে নিরাপত্তা বাহিনীর সঙ্গে রোহিঙ্গাদের রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষ হয়। এসময় পুলিশ ও সেনাবাহিনীর কমপক্ষে ২০টি তল্লাশিচৌকিতে হামলা হয়।

এতে নিরাপত্তাবাহিনীর সদস্যসহ কমপক্ষে ৮৯ জন নিহত হয়।
মিয়ানমারের পররাষ্ট্রমন্ত্রী অং সান সু চির দপ্তর শুক্রবার জানিয়েছে, নিহত ব্যক্তিদের মধ্যে পুলিশসহ নিরাপত্তা বাহিনীর সদস্যসংখ্যা ১২ জন। অন্য ৭৭ জনকে ‘জঙ্গি’ বলে দাবি করা হয়েছে।

এই হামলার পর প্রাণ বাঁচাতে বিপুলসংখ্যক রোহিঙ্গা জনগোষ্ঠীর আবারও বাংলাদেশে অনুপ্রবেশের আশঙ্কা করা হচ্ছে। শুক্রবারই ১৪৬ জনকে ফেরত পাঠিয়েছে বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি)।

Loading...