আন্তর্জাতিক

উত্তর কোরিয়ার হয়ে গুপ্তচরবৃত্তির সন্দেহে ফ্রান্সের সরকারি কর্মকর্তা আটক

উত্তর কোরিয়ার হয়ে গুপ্তচরবৃত্তির সন্দেহে বেনোয়া কুয়েনেডি নামের এক সরকারি কর্মকর্তাকে আটক করেছে ফ্রান্সের গোয়েন্দা সংস্থা।সোমবার প্রকাশিত এক প্রতিবেদনে দেশটির রাজধানী প্যারিসের একটি জুডিশিয়াল সূত্রের বরাত দিয়ে এই তথ্য জানিয়েছে ফরাসি সংবাদ সংস্থা এএফপি।ফ্রাঙ্কো-কোরিয়ান ফ্রেন্ডশিপ অ্যাসোসিয়েশনের প্রেসিডেন্ট কুয়েনেডিকে রোববার পুলিশের হেফাজতে নেয়া হয়। তিনি উত্তর কোরিয়ার ওপর একটি বইও লিখেছেন।সূত্রটি জানায়, এই সরকারি কর্মকর্তা দেশের মৌলিক স্বার্থ ক্ষুণ্ণ করে বিভিন্ন তথ্য সংগ্রহের পর সেগুলো একটি বিদেশি শক্তির হাতে তুলে দিয়েছেন বলে মনে করা হচ্ছে। বিষয়টি তদন্ত করছে আইনজীবীরা।আরও জানায়, কুয়েনেডি পিয়ংইয়ংকে তথ্য দিয়েছেন কিনা তা নিশ্চিত হতে তদন্ত করছেন ফ্রান্সের গোয়েন্দা সংস্থা ‘জেনারেল ডিরেক্টোরেট ফর ইন্টারনাল সিকিউরিটি’র তদন্ত কর্মকর্তারা।এই বিষয়ে জানতে চাইলে কোনও মন্তব্য করতে রাজি হননি ফরাসি সিনেটের প্রেসিডেন্ট।ফ্রান্সের সিনেট ওয়েবসাইট অনুসারে, দেশটির সংসদের উচ্চকক্ষের স্থাপত্য, ঐতিহ্য ও উদ্যান বিষয়ক বিভাগের সিনিয়র প্রশাসক কুয়েনেডি।তিনি উত্তর কোরিয়ার ওপর একাধিক নিবন্ধ লিখেছেন এবং এই উপদ্বীপের সব অঞ্চল পরিদর্শন করেছেন।উত্তর কোরিয়ার সঙ্গে খুবই ভালো সম্পর্ক ফ্রাঙ্কো-কোরিয়ান ফ্রেন্ডশিপ অ্যাসোসিয়েশনের। এছাড়া দুই কোরিয়ার পুনরেকত্রীকরণকে সমর্থন করে এই অ্যাসোসিয়েশন।কিম জং উন শাসিত উত্তর কোরিয়ার পারমাণবিক কর্মসূচি বন্ধ করতে দেশটির ওপর কঠোর অর্থনৈতিক নিষেধাজ্ঞা আরোপ করে যুক্তরাষ্ট্র।গত জুনে সিঙ্গাপুরে উত্তর কোরিয়ার প্রেসিডেন্ট কিম এবং যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের বৈঠকের পর দুই দেশের সম্পর্কের উন্নতি হলেও উত্তর কোরিয়ার ওপর এখনও নিষেধাজ্ঞা আরোপ অব্যাহত রাখা হয়েছে। যুক্তরাষ্ট্রের পক্ষ থেকে বলা হচ্ছে সম্পূর্ণ পারমাণবিক নিরস্ত্রীকরণ ছাড়া সব নিষেধাজ্ঞা তোলা হবে না।আগস্টে ইউটিউবে পোস্ট করা একটি সাক্ষাৎকারে কুয়েনেডি যুক্তরাষ্ট্র ও উত্তর কোরিয়ার মধ্যকার উত্তেজনা প্রশমনকে স্বাগত জানান।

আরো দেখুন
Close
Close